প্রবাস | The Daily Ittefaq

যুক্তরাষ্ট্রের সিবিডব্লিউ ব্যাংকের সঙ্গে রূপালী ব্যাংকের চুক্তি

যুক্তরাষ্ট্রের সিবিডব্লিউ ব্যাংকের সঙ্গে রূপালী ব্যাংকের চুক্তি
বিশেষ প্রতিনিধি, যুক্তরাষ্ট্র০৫ আগষ্ট, ২০১৮ ইং ১৮:৪২ মিঃ
যুক্তরাষ্ট্রের সিবিডব্লিউ ব্যাংকের সঙ্গে রূপালী ব্যাংকের চুক্তি
প্রবাসীদের রেমিটেন্সের অর্থ বাংলাদেশে নেওয়ার পথ আরও সুগম করতে যুক্তরাষ্ট্রের সিবিডব্লিউ ব্যাংকের সঙ্গে চুক্তি করেছে রাষ্ট্রায়াত্ত্ব মালিকানাধীন রূপালী ব্যাংক লিমিটেড। স্থানীয় সময় শনিবার দুপুরে নিউইয়র্কের জ্যাকসন হাইটসে বেলেজিনো পার্টি হলে এক অনুষ্ঠানে এ চুক্তি সম্পাদন করা হয়। রূপালী ব্যাংক লিমিটেডের পক্ষে চেয়ারম্যান মঞ্জুর হোসেন ও এমডি আতাউর রহমান প্রধান এবং সিবিডব্লিউ ব্যাংকের প্রেসিডেন্ট সুচিত্রা পদ্মামানভন এ চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন।
 
এ সময় আমেরিকা প্রবাসীদের বিনিয়োগে প্রতিষ্ঠিত রেমিটেন্স কোম্পানি ‘ফামাক্যাশ’-এর সিইও সাইফুল খন্দকার, পরিচালক আবু হানিপ, হোসেন সিরাজী, ফামাক্যাশ-এর বাংলাদেশের এমডি খাজা রেহান বখত, সমন্বয়কারী হাসানুজ্জামান হাসান, রবিউল আলম, মঞ্জুর হোসেনসহ শীর্ষ কর্মকর্তারা সেখানে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও কমিউনিটি লিডার হাসানুজ্জামান হাসান।
 
রূপালী ব্যাংকের এমডি ও সিইও আতাউর রহমান প্রধান বলেন, জাতীয়ভিত্তিক তালিকায় রূপালী ব্যাংক চতুর্থ শীর্ষস্থানীয় হলেও অনলাইন ব্যাংকিং-এ সবার শীর্ষে রয়েছে। এর ৫৬৫টি শাখার সবগুলোতেই অনলাইন ব্যাংকিং চালু রয়েছে। অর্থাৎ সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশের পরিপূরক কর্মকাণ্ডে রূপালী ব্যাংক সবসময় এগিয়ে রয়েছে।
 
আতাউর বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের সিবিডব্লিউ ব্যাংকের সঙ্গে আজকের এ চুক্তির মধ্য দিয়ে রূপালী ব্যাংকের দিগন্ত আরও প্রসারিত হলো। এখন ফামাক্যাশের মাধ্যমে এক ক্লিকেই প্রবাসীদের ডলার বাংলাদেশে যে কোন স্থানে পৌঁছে যাবে। মোবাইল ব্যাংকিংয়ের জগতে এ এক অবিস্মরণীয় অধ্যায়ের সংযোজন ঘটলো।
 
বাংলাদেশের প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ১ কোটি ৩০ লাখ ক্লায়েন্ট রয়েছে, তারা রূপালী ব্যাংকের সেবা নিচ্ছেন বলে জানান আতাউর রহমান।
 
রূপালী ব্যাংকের চেয়ারম্যান মঞ্জুর হোসেন এ সময় উল্লেখ করেন, সেবার পরিধি বিস্তৃত করতে শিগগিরই মধ্যপ্রাচ্য এবং ইউরোপের বিভিন্ন দেশেও এই প্রক্রিয়া চালু করা হবে।
 
স্বাগত বক্তব্যে ফামাক্যাশ-এর সিইও ইঞ্জিনিয়ার সাইফুল খন্দকার বলেন, তথ্য-প্রযুক্তি যথাযথভাবে ব্যবহারের মধ্য দিয়ে স্বল্পতম সময়ে এবং নিরাপদে প্রবাসীদের অর্থ প্রিয়জনের কাছে পৌঁছে দিতে বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের দুইটি ব্যাংকের মধ্যকার এই চুক্তি ঐতিহাসিক ভূমিকা রাখবে বলে আশা করছি।
 
ইত্তেফাক/নূহু
এই পাতার আরো খবর -
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
২১ আগষ্ট, ২০১৮ ইং
ফজর৪:১৭
যোহর১২:০২
আসর৪:৩৬
মাগরিব৬:৩০
এশা৭:৪৬
সূর্যোদয় - ৫:৩৬সূর্যাস্ত - ০৬:২৫