রাজধানী | The Daily Ittefaq

নাচে গানে উন্নয়নের পদযাত্রা উদযাপন

নাচে গানে উন্নয়নের পদযাত্রা উদযাপন
ইত্তেফাক রিপোর্ট১২ জানুয়ারী, ২০১৮ ইং ২০:৩৫ মিঃ
নাচে গানে উন্নয়নের পদযাত্রা উদযাপন
 
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে মহাজোট সরকার চার বছর পেরিয়ে পা রাখলো পাঁচ বছরে। বহু বাধা পেরিয়ে দেশকে উন্নয়নের পথে স্বপ্নময় অবস্থানে নিয়ে এসেছে এ সরকার। এই পথচলাকে উদযাপন করা হলো সুরের মুর্ছনায় আর নৃত্যের ছন্দে ছন্দে। শুক্রবার সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের আয়োজনে আর্মি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হলো বর্নাঢ্য সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। হাজার হাজার মানুষ নেচে গেয়ে এ আয়োজনে সামিল হন।‘
 
‘পিতার স্বপ্নে কন্যার আহ্বানে কোটি মানুষের মিছিল চলেছে মুক্তির অভিযানে’প্রতিপাদ্যের এই আনন্দ আয়োজনের মাঝেই পর্দায় সরাসরি  দেখানো হয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জাতির উদ্দেশে দেয়া ভাষণ। এ ছাড়া সাংস্কৃতিক পরিবেশনার ফাঁকে ফাঁকে পর্দায় সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, দপ্তর, অধিদপ্তরের বিগত চার বছরের উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের ছোট ছোট তথ্যচিত্র প্রদর্শিত হয়। বিকেলে শুরু করে রাত পর্যন্ত নাচে গানে মাতিয়ে রাখেন শিল্পকলার শিল্পীরা। এছাড়া ব্যান্ডদল দলছুট, চিরকুট, সোলস, জেমস ও মমতাজ সঙ্গীত পরিবেশন করেন। 
 
অনুষ্ঠানের এক পর্যায়ে বক্তব্য নিয়ে মঞ্চে আসেন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর। তিনি বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে হত্যার পর বাংলাদেশ দীর্ঘদিন উল্টো পথে হেঁটেছে, বাংলার ইতিহাসের ভুল পথে যাত্রা শুরু হয়েছিল। ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পরে চিত্রটি পাল্টে যায়। বাংলাদেশে স্বাধীনতার সুবাতাস বইতে শুরু করে, শুরু হয় উন্নয়নের মহাযজ্ঞ। আমরা এখন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দিক নির্দেশনায় উজ্জ্বল আলোর অভিসারী হয়ে নতুন লক্ষ্যে যাত্রা শুরু করেছি।’ 
 
এই আয়োজনের শুরুতেই জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশন করেন শিল্পকলা একাডেমির শিল্পীরা। জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনার পর শিল্পকলা একাডেমির শিল্পীরা সম্মেলক কণ্ঠে পরিবেশন করেন ‘জয় বাংলা বাংলার জয়’। এরপর মঞ্চে অনিক বোস ও তার দল ‘জ্বলে উঠো বাংলাদেশ’ ও ‘এ মাটি নয় জঙ্গিবাদের’ গান দুটির সঙ্গে নৃত্য পরিবেশন করে। এর পর ফারহানা চৌধুরী বেবীর পরিচালনায় ‘জননেত্রী শেখ হাসিনা, একটি গর্ব একটি বাংলাদেশ’ ও ‘চলো বাংলাদেশ’ গানের সঙ্গেও ছিল নৃত্য। দীপা খন্দকারের পরিচালনায় শিল্পকলা একাডেমির নৃত্যশিল্পীরা ‘আজি বাংলাদেশের হৃদয় হতে’ গানের সঙ্গে নৃত্য পরিবেশন করেন।
 
ইত্তেফাক/ইউবি
 
 
এই পাতার আরো খবর -
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
২২ অক্টোবর, ২০১৮ ইং
ফজর৪:৪৪
যোহর১১:৪৪
আসর৩:৫০
মাগরিব৫:৩০
এশা৬:৪৩
সূর্যোদয় - ৫:৫৯সূর্যাস্ত - ০৫:২৫