সংস্কৃতি | The Daily Ittefaq

বাংলাদেশ-চীন সাংস্কৃতিক সম্প্রতি

বাংলাদেশ-চীন সাংস্কৃতিক সম্প্রতি
শিল্পকলায় দুই দেশের শিল্পীদের পরিবেশনা
ইত্তেফাক রিপোর্ট১৬ জানুয়ারী, ২০১৭ ইং ০০:২৩ মিঃ
বাংলাদেশ-চীন সাংস্কৃতিক সম্প্রতি

চীনা ভাষায় গান গাইলেন চীনের সাংস্কৃতিক দল। বাংলাদেশের দর্শকরা বুঝলেন না, বাংলা ভাষার গানও নিশ্চয়ই চীনের শিল্পীরা বোঝেননি। কিন্তু ভাষার দূরত্ব ঘুচিয়ে দিয়েছিল দুদেশের বন্ধুত্বের উষ্ণতা। বাংলাদেশ ও চীনের বন্ধুত্ব উদযাপনের অঙশ হিসাবে গতকাল শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় নাট্যশালায় মঞ্চস্থ হলো দুদেশের শিল্পীদের পরিবেশনা।

 
চীনা নববর্ষ উপলক্ষে গতকাল এ সাংস্কৃতিক পরিবেশনাটির আয়োজন করে বাংলাদেশ ও চীনের সংস্কৃতি মন্ত্রণালয় এবং চীনের হেনান প্রদেশের প্রাদেশিক সরকার। আজ সোমবারও একই মঞ্চে হবে অনুষ্ঠান।
 
রবিবার সন্ধ্যায় নৃত্য পরিবেশিত হলো শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় নাট্যশালার মূল মিলনায়তনে। নৃত্যনাট্য উপস্থাপন করেন নৃত্যশিল্পী মুনমুন আহমেদ ও তার দল। আর দর্শককে বিমোহিত করেছে চীনের হেনান আর্ট ট্রুপ। ৩৫ সদস্যের এই চীনা দলটি উপস্থাপন করে বহুমাত্রিক পরিবেশনা। অনবদ্য অ্যাক্রোবেটিকের সঙ্গে ছিল নাচ ও গানের মনমাতানো উপস্থাপনা।
 
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর। বিশেষ অতিথি    সংস্কৃতিসচিব আক্্তারী মমতাজ, ঢাকাস্থ চীনা দূতাবাসের চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্স ইয়াং শিচাও এবং শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী। স্বাগত বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ-চায়না ফ্রেন্ডশিপ সেন্টারের সভাপতি দেলোয়ার হোসেন। শুরুতেই মঞ্চে আসে মুনমুন আহমেদ ও তার দল রেওয়াজ। এরপর ঢাকা সাংস্কৃতিক দল সম্মিলিত কণ্ঠে চীনা ভাষায় গান গেয়ে শোনান। হেনান আর্ট ট্রুপের শিল্পীরা নৃত্যের ছন্দে তুলে আনেন চীনের ঐতিহ্য। এ সময় মঞ্চে থাকা বিশালাকৃতির এলইডি মনিটরে তুলে আনা হয় চীনের ঐতিহ্যবাহী নানা স্থাপনার চিত্র। এর পর মঞ্চে পরিবেশন করা হয় শাওলিন, যা কুংফু নামেই অধিক পরিচিত। ছিলো দলটির নারী সদস্যদের পরিবেশনায় অ্যাক্রোবেটিক শো।
 
‘নায়করাজ রাজ্জাক : জীবন ও কর্ম’ শীর্ষক সেমিনার
 
বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের উদ্যোগে গতকাল বিকেলে রাজধানীর শাহবাগে সংস্থার প্রজেক্শন হলে ‘নায়করাজ রাজ্জাক : জীবন ও কর্ম’ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। সেমিনারে সাংবাদিক, গবেষক ও কণ্ঠশিল্পী ইসমত জেরিন স্মিতা তার গবেষণাকর্ম উপস্থাপন করেন। বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের মহাপরিচালক মো. জাহাঙ্গীর হোসেনের সভাপতিত্বে সেমিনারে আলোচনায় অংশ নেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার অ্যান্ড পারফর্মমেন্স স্টাডিজের অধ্যাপক ও অভিনেতা রহমত আলী, প্রবীন চলচ্চিত্র পরিচালক রহিম নওয়াজ, সাংবাদিক, গবেষক ও লেখক চিন্ময় মুত্সুদ্দী। সেমিনারে গবেষণা তত্ত্বাবধায়ক জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগের অধ্যাপক ড. রশিদ হারুন বক্তব্য রাখেন। মুক্ত আলোচনায় চলচ্চিত্র গবেষক ও লেখক অনুপম হায়াত ও মাহমুদা চৌধুরী বক্তব্য রাখেন।

ইত্তেফাক/এএন

এই পাতার আরো খবর -
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
৩০ এপ্রিল, ২০১৭ ইং
ফজর৪:০৪
যোহর১১:৫৬
আসর৪:৩২
মাগরিব৬:২৯
এশা৭:৪৭
সূর্যোদয় - ৫:২৫সূর্যাস্ত - ০৬:২৪