বিনোদন | The Daily Ittefaq

আদম পাচারের কথা স্বীকার অনন্য মামুনের

আদম পাচারের কথা স্বীকার অনন্য মামুনের
ইত্তেফাক রিপোর্ট২৯ ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং ২১:৩০ মিঃ
আদম পাচারের কথা স্বীকার অনন্য মামুনের
 
সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আড়ালে ৫৭ জন আদম পাচারের অভিযোগে আটক বাংলাদেশের সিনেমা পরিচালক অনন্য মামুনসহ ১৯ জনকে মালয়েশিয়ার অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা বিষয়ক একটি কঠোর আইনে বন্দি করা হয়েছে। 
 
এই বিশেষ আইনে একজন অভিযুক্তকে ২৮ দিন পর্যন্ত বিনাবিচারে আটক রাখার বিধান রয়েছে। এই আইনে মূলত জঙ্গি এবং রাষ্ট্রীয় শত্রুদের আটক করা হয়। তদন্তে দোষী প্রমাণিত হলে সর্বোচ্চ ১৫ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে। বিদেশি গনমাধ্যমকে এমনটাই জানিয়েছেন মালয়েশিয়ান কর্তৃপক্ষ। 
 
এদিকে ডাংওয়াংগি পুলিশ বিভাগের প্রধান শাহারুদ্দিন আবদুল্লাহ বার্তা সংস্থাকে বলেন, অনন্য মামুনকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। মামুন পুলিশের কাছে টাকার বিনিময়ে আদম পাচারের কথা স্বীকার করেছে। মামুন জানিয়েছে, এই আদম পাচারের মূল হোতা ঢাকার লাইভ টেকনোলজি নামে একটি প্রতিষ্ঠান। তারাই মূলত আদম সংগ্রহ করেছে। এই প্রতিষ্ঠানের কর্ণধর অতুল-আরাফাত।এর মধ্যে অতুল বিদেশে পালিয়ে গেছে। তারাই মালয়েশিয়ায় শিল্পীদেরকে আসা-যাওয়ার  টিকেট সরবরাহ করে। হাত খরচা দেয়। আর অনন্য মামুন হলো লাইভ টেকনোলজীর সহযোগী। 
 
এদিকে চলচ্চিত্র নির্মাতা অনন্য মামুনের সদস্যপদ স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতি। মালয়েশিয়ায় আদম পাচারের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে সংগঠনটি। 
 
পরিচালক সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজার জানান, প্রাথমিকভাবে পরিচালক অনন্য মামুনের সদস্যপদ স্থগিত করা হয়েছে। শনিবারের আরেকটি বৈঠকে সবরকম তথ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে নতুন সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।   
 
জানা যায়, ৫৭ জনের একটি দল নিয়ে পরিচালক অনন্য মামুন ১৩ ডিসেম্বর মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুরে যান। এই দলে ২৭ জন শিল্পী এবং অভিনেতা ছিলেন, যারা 'সিনেমাটিক বাংলাদেশি নাইটস' শীর্ষক একটি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে যোগ দিতে গিয়েছিলেন। অনুষ্ঠানটি ২৩ ডিসেম্বর কুয়ালালামপুরে অনুষ্ঠিত হয় । যেখানে প্রায় ২৬০০ দর্শক সমবেত হয়েছিলেন। 
 
কুয়ালালামপুরের এয়ারপোর্টে এতো লোক দেখেই পুলিশের সন্দেহ হয়। তাদের ৪-৫ ঘণ্টা আটক রেখে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদ করে। পরে গোয়েন্দা তথ্যে পুলিশ নিশ্চিত হয়- প্রায় ১০০ জনের কথিত ’সাংস্কুতিক দলে’ যারা এসেছে তাদের প্রায় সবাই ’আদম’। তাদেরকে পাচারের উদ্দেশ্যে আনা হয়েছে। প্রতি জনের কাছ থেকে আড়াই লাখ টাকা করে নিয়েছে। এই ৫৭ জনকে তিনটি হোটেল থেকে আটক করে পুলিশ। পরে তাদের তথ্যের ভিত্তিতে গত রবিবার মধ্যরাতে কুয়ালালামপুরের একটি এপার্টমেন্ট থেকে গ্রেফতার করা হয় চলচ্চিত্র পরিচালক অনন্য মামুন এবং আরও ১৮ জন বাংলাদেশিকে ।
 
ইত্তেফাক/ইউবি
 
 
এই পাতার আরো খবর -
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং
ফজর৪:৩৪
যোহর১১:৫১
আসর৪:১১
মাগরিব৫:৫৪
এশা৭:০৭
সূর্যোদয় - ৫:৪৮সূর্যাস্ত - ০৫:৪৯