ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ৯ ফাল্গুন ১৪২৫
২৭ °সে

এসএসসি পরীক্ষা আমাদের সবার জন্যও একটা পরীক্ষা: ডা. দীপু মনি

পরীক্ষার আগে অনৈতিক পথে নামবেন না: ডা. দীপু মনি
ক্রীড়া প্রতিযোগিতার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। ছবি:

প্রশ্নফাঁসসহ শিক্ষা ও পরীক্ষা পদ্ধতির সকল অনিয়ম উৎপাটনে কঠোর হওয়ার ঘোষণা দিয়ে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি অভিভাবক ও পরীক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, পরীক্ষার আগে অনৈতিক পথে নামবেন না।

মঙ্গলবার চট্টগ্রাম মহানগরীর এম এ আজিজ স্টেডিয়ামে জাতীয় স্কুল ও মাদ্রাসার শীতকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এই আহ্বান জানান।

আগামী ২ ফেব্রুয়ারি থেকে অনুষ্ঠিতব্য মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষার প্রসঙ্গে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, আসন্ন এই পরীক্ষা আমাদের সবার জন্যও একটা পরীক্ষা। আমরা এই পরীক্ষায় ভালোভাবে উত্তীর্ণ হতে চাই। এই পরীক্ষা যেন সম্পূর্ণভাবে প্রশ্নপত্র ফাঁসমুক্ত এবং নকলমুক্তভাবে অনুষ্ঠিত হয়।

মন্ত্রী বলেন আমরা চাই, পরীক্ষার্থীরা সঠিকভাবে পড়াশোনা করবে, ঠিকভাবে পরীক্ষায় অংশ নেবে এবং ভালো ফলাফল করবে। অনৈতিকতার পথে হেঁটে কখনো ভালো ফল পাওয়া যায় না।

প্রশ্ন ফাঁসকারীদের কঠোরভাবে মোকাবেলার ঘোষণা দিয়ে মন্ত্রী বলেন, আমরা চেষ্টা করবো কোনোভাবেই যেন কোন অসৎমহল আমাদের সুন্দর প্রক্রিয়াকে বিনষ্ট করতে না পারে। ছাত্রছাত্রী অভিভাবকরা যদি সবাই অনৈতিকতা থেকে দূরে থাকে তাহলে দুর্বৃত্তরা এই অপকর্ম করার অপচেষ্টা করবে না। এক্ষেত্রে সবারই করণীয় রয়েছে।

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ করে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ক্লাসে প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় হওয়া নিশ্চয় জরুরী, জিপিএ-৫ পাওয়াও জরুরী। কিন্তু সেটি একমাত্র বিবেচনার বিষয় হতে পারে না। আমি ভালো মানুষ হলাম কি না, আমার মধ্যে মানবিকতাবোধ, নৈতিকতাবোধ আছে কি না, আমি একজন সুনাগরিক হিসেবে গড়ে উঠলাম কি না, আমি সুস্থ, সুন্দর মন নিয়ে বড় হচ্ছি কি না সেটি সবার আগে বিবেচনার বিষয়। গত এক দশকে আমরা শিক্ষাক্ষেত্রে অনেক অর্জন দেখেছি। এর পাশপাশি আমরা এখন শিক্ষার মান উন্নত করতে মনযোগী হয়েছি। এটা আমাদের অবশ্যই এগিয়ে নিতে হবে।

শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সুখী-সমৃদ্ধ সোনার বাংলা গড়তে হলে আমাদের শিক্ষাব্যবস্থায় যেসব ত্রুটিবিচ্যুতি আছে, সেগুলোকে দূর করতে হবে। সেখানে শুধুমাত্র সরকার নয়, অভিভাবক, পরীক্ষার্থী এবং শিক্ষক সকলকে কাজ করতে হবে। সকল নাগরিকেরও দায়িত্ব আছে। সংবাদ মাধ্যমেরও রয়েছে বিরাট ভূমিকা।

আরও পড়ুন: রাশিয়ায় দুই জাহাজে আগুন, ১৪ তুর্কি ও ভারতীয়র মৃত্যু

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল শিক্ষার্থীদেরকে জ্ঞানের পরিধি বাড়াতে পাঠ্যপুস্তকের বাইরের বিষয়াদি নিয়েও পড়াশোনার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, তোমরা অবশ্যই পড়াশোনা করবে। পড়াশোনাকে জীবনের জন্য অর্থবহ কাজে পরিণত করতে হবে। ফলাফলের দিকে না তাকিয়ে জ্ঞান এবং শিক্ষাকে নিতে হবে মননকে শাণিত করার উপাদান হিসাবে। আমাদেরকে গুণীজনদের কাছ থেকে এবং ইতিহাস থেকে শিক্ষা নিতে হবে। তিনি পড়ালেখার পাশাপাশি নিয়মিত খেলাধুলা করারও তাগিদ দেন। তিনি বলেন, আজ বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনা দেশ পরিচালনা করছেন। তিনি দেশ পরিচালনা করছেন বলেই তোমরা স্বাধীনতার সত্যিকারের ইতিহাস জানতে পারছ। জাতির জনক সম্পর্কে জানতে পারছ। মুক্তিযুদ্ধ সম্পর্কে জানতে পারছ।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ড. সৈয়দ গোলাম ফারুক। বক্তব্য রাখেন, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব সোহরাব হোসাইন, কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. আলমগীর, চট্টগ্রামের বিভাগীয় কমিশনার মো. আবদুল মান্নান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক শাহেদা ইসলাম।

ইত্তেফাক/এমআই

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন