সংসদীয় গণতন্ত্রে অসহিষ্ণুতার কোনো জায়গা নেই----- প্রণব মুখার্জি
তারিক হাসান, কলকাতা প্রতিনিধি২০ জানুয়ারী, ২০১৭ ইং
সংসদীয় গণতন্ত্রে অসহিষ্ণুতার কোনো জায়গা নেই। গণতন্ত্রে তর্ক, বিরোধিতা, সিদ্ধান্ত থাকবেই। না ‌হলে সংসদীয় গণতন্ত্র মজবুত হবে না।  এক্ষেত্রে সংবাদপত্রের বড় ভূমিকা আছে। গতকাল বৃহস্পতিবার আজকাল পত্রিকার ৩৫তম বর্ষপূর্তির অনুষ্ঠান উপলক্ষে কলকাতায় এক অনুষ্ঠানে একথা বলেছেন ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি।

রাষ্ট্রপতি বলেছেন, সংসদীয় গণতন্ত্রে ভিন্নমত অপরিহার্য। ত্রুটি-বিচ্যুতি থেকে সমাজকে দিশা দেখায় সংবাদপত্র। নীতি-নির্ধারণেও সমাজে এর প্রভাব পড়ে। তিনি বলেন, আজকালের পাতায় আমার সুন্দর সুন্দর কার্টুন বেরিয়েছে। সেবার আমি প্ল্যানিং কমিশনের ডেপুটি চেয়ারম্যান। এর কাজটা অনেকটা অরাজনৈতিক। একটা কার্টুন বেরিয়েছিল, খাঁচার মধ্যে আমি ছটফট করছি, বেরোনোর জন্য শিকে ঠোক্কর দিচ্ছি। কার্টুনটির নাম ছিল ‘‌খাঁচার পাখি’‌।

এদিনের অনুষ্ঠানে মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন পশ্চিমবঙ্গের  রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠী, বাংলার ক্রিকেট-‌গৌরব সৌরভ গাঙ্গুলি, পশ্চিমবঙ্গের পুর ও নগরোন্নয়নমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম, আজকাল পত্রিকার সম্পাদক অশোক দাশগুপ্ত, সংস্থার চেয়ারম্যান সত্যম রায় চৌধুরী, টেকনো ইন্ডিয়া গ্রুপের চেয়ারম্যান গৌতম রায় চৌধুরী প্রমুখ। আজকালের ৩৫ বছরের স্মারক গ্রন্থও প্রকাশ করেন প্রণব মুখার্জি।

স্বাগত ভাষণে আজকালের সম্পাদক অশোক দাশগুপ্ত বলেন, রাষ্ট্রপতি দীর্ঘ সময় আজকালের সঙ্গে থেকেছেন। এই সময়ের মধ্যে অনেকে অবসর নিয়েছেন। কেউ কেউ বেঁচে নেই। কেউ বা অন্যত্র গিয়েছেন। সবার শুভেচ্ছা নিয়েই আজকাল এগিয়ে চলেছে। আজকাল চেয়ারম্যান সত্যম রায় চৌধুরী বলেন, তিন দশকের পাঠক। দু’‌বছর হল আজকালের সঙ্গে যুক্ত হয়েছি। এই অভিজ্ঞতা মানুষ হিসেবে আমাকে সমৃদ্ধ করছে। এ ছাড়াও ভাষণ দেন গৌতম রায় চৌধুরী।‌‌‌

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
২০ জানুয়ারী, ২০১৮ ইং
ফজর৫:২৩
যোহর১২:১০
আসর৪:০১
মাগরিব৫:৪০
এশা৬:৫৬
সূর্যোদয় - ৬:৪২সূর্যাস্ত - ০৫:৩৫
পড়ুন