ঢাকা শনিবার, ২৩ মার্চ ২০১৯, ৯ চৈত্র ১৪২৫
২৪ °সে

আজ শুরু ওয়ানডে সিরিজ

নিষিদ্ধ হতে পারেন পান্ডিয়া-রাহুল

নিষিদ্ধ হতে পারেন পান্ডিয়া-রাহুল
বিশ্বকাপে চোখ থাকলেও আজ অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে ওয়ানডে সিরিজ খেলতে মাঠে নামবে কোহলি বাহিনী —ওয়েবসাইট

স্পোর্টস রিপোর্টার

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে মাঠে নামতে যখন ২৪ ঘণ্টারও কম সময় বাকি তখনও ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট জানতো না, আজকের ম্যাচে হার্দিক পান্ডিয়া খেলবেন কি খেলবেন না! ‘কফি উইদ করণ’ নামের একটি টেলিভিশন শো-তে গিয়ে বেফাঁস কিছু মন্তব্য করার দায়ে বোর্ড অব কনট্রোল ফর ক্রিকেট ইন ইন্ডিয়া বিসিসিআই তাঁদের আগেই কারণ দর্শানোর নোটিশ পাঠিয়েছে। এমন গুঞ্জনও আছে যে, এই দুই ক্রিকেটার দুই ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধও হতে পারেন। ফলে আজ সিডনিতে মাঠে নামা অনেকটাই অনিশ্চিত তাদের।

অধিনায়ক বিরাট কোহলিও সাফ জানিয়ে দিয়েছেন যে, এই দু’জন যা মন্তব্য করেছেন সেটা আছে দলের সংস্কৃতির সাথে যায় না। তিনি বলেন, ‘ভারতীয় ক্রিকেট দলের দৃষ্টিভঙ্গি বিবেচনা করলে তারা যে মন্তব্যগুলো করেছে তা একদমই অগ্রহণযোগ্য এবং আমরা এসব সমর্থন করতে পারি না। আমরা অবশ্যই এসব সমর্থন করবো না। এই মন্তব্য আমাদের দলের সংস্কৃতির সাথে যায় না। ’

গত রবিবার বলিউড প্রযোজক ও পরিচালক করন জোহরের উপস্থাপনায় ‘কফি উইথ করণ’ অনুষ্ঠানটি সম্প্রচারিত হয়। সেখানে নানা বিষয়ে বেফাঁস মন্তব্য করেন পান্ডিয়া ও রাহুল। বিশেষ করে পান্ডিয়ার মুখ চলেছে বেশি। এমনকি সেখানে নারী বিষয়ক বেশ কিছু স্পর্শকাতর মন্তব্যও আছে। পরে বোর্ডের নোটিশ দেখে অবশ্য ক্ষমাও চেয়েছেন।

ক্রিকেটারদের এমন আচরণ দলীয় ভাবমূর্তিকে নষ্ট করছে দাবি করে এই দুই ক্রিকেটারকে দুই ম্যাচ নিষিদ্ধ করার জন্য সুপারিশ করেছেন কমিটি অব অ্যাডমিনিস্ট্রেটর (সিওএ) প্রধান বিনোদ রাই। বৃহস্পতিবার এক কলামে ক্রিকেটারদের এমন আচরণ ক্ষমার যোগ্য নয় বলে জানান তিনি। তিনি লিখেছেন, ‘কোনো ক্ষমাই তাদের প্রাপ্য নয়। আমি ডায়ানা এডুলজিকে (আরেকজন পরিচালক) শাস্তির ব্যাপারে সুপারিশ করেছি, কারণ আমি ক্লিপটুকু দেখিনি। আমার মনে হয়েছে দুজনকে দুই ম্যাচ নিষেধাজ্ঞা দেয়া উচিত।’

অনুষ্ঠানটিতে দু’জনই ব্যাটসম্যান হিসেবে স্বয়ং শচিন টেন্ডুলকারের চেয়ে এগিয়ে রেখেছেন বিরাট কোহলিকে। এই ইস্যুতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারকারীরা রীতিমত দু’জনকে ধুয়ে দিচ্ছেন।

তবে, এসব ব্যাপারে সিরিজ শুরুর আগে এসব নিয়ে ভাবতে নারাজ বিরাট কোহলির দল। এমনকি এ নিয়ে বাড়তি চাপ নিতেও নারাজ তিনি। বললেন, ‘আমরা পরিস্থিতি নিয়ে কোনো চাপ নিচ্ছি না। যেকোনো সময়ই আমাদের দলের ভারসাম্য ঠিক রাখার ব্যবস্থা থাকে। এবং এ ছাড়াও দলে এমন প্লেয়ার থাকে যারা ব্যাট ও বলে ব্যাকআপ হিসেবে থাকে। আমাদের যদি কম্বিনেশন পরিবর্ততন করতে হয় তা হলে আমাদের খুব সমস্যা হবে না। আমরা আমাদের দল নিয়ে যথেষ্ট আত্মবিশ্বাসী যাতে যে কোনো কম্বিনেশন নিয়ে নামতে পারি।’

কোহলি এও বুঝিয়ে দিয়েছেন, তাঁর দলের কম্বিনেশন নিয়ে তিনি এতটাই সন্তুষ্ট যে ৩০ মে থেকে ইংল্যান্ডে শুরু হতে যাওয়া বিশ্বকাপেও এই দলে বিশেষ কোনো পরিবর্তন হওয়ারও সম্ভাবনা নেই। তিনি বলেন, ‘আসল ঘটনা হল বিশ্বকাপের আগে আমাদের হাতে অনেক ম্যাচ নেই। এবং আমরা সেই দল নিয়ে খেলছি যারা বিশ্বকাপ দলে থাকবে। একমাত্র জাসপ্রিত বুমরাকে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে টেস্ট সিরিজের অতিরিক্ত চাপের জন্য। এর বাইরে আমার মনে হয় না কম্বিনেশনে খুব বেশি কোনো রদবদল করতে হবে।’

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২৩ মার্চ, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন