সারাদেশ | The Daily Ittefaq

কোটি টাকা নিয়ে উধাও দুটি সংস্থা

কোটি টাকা নিয়ে উধাও দুটি সংস্থা
ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি২০ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮ ইং ০৯:৩৭ মিঃ
কোটি টাকা নিয়ে উধাও দুটি সংস্থা
১ কোটি ৩০ লাখ টাকা নিয়ে উধাও হয়েছে 'চামেলি প্রতিবন্ধী উন্নয়ন' ও 'বন্ধন ওয়েলফেয়ার সোসাইটি' নামের দুটি সংস্থা। এ নিয়ে সংস্থা দুটির কার্যালয়ে বিক্ষোভ করেছেন ক্ষতিগ্রস্ত সুপারভাইজার ও শিক্ষকরা। তারা সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের কাছে এর প্রতিকার চেয়েছেন।
 
জানা যায়, ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার জেলার পাঁচ উপজেলায় বিনামূল্যে গণশিক্ষা কর্মসূচি পরিচালনার লক্ষ্যে পাঁচ বছর মেয়াদের কথা বলে ২ হাজার ৫শ' স্কুল স্থাপন করে বন্ধন ওয়েলফেয়ার সোসাইটি। সে সব স্কুলে শিক্ষক-সুপারভাইজার নিয়োগ প্রার্থীদের কাছ থেকে জামানত এবং শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে রেজিস্ট্রেশন ফির নামে ওই অর্থ আদায় করে চামেলি প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সংস্থা।
 
গতকাল সোমবার তাদের অফিসে দেখা যায় তালা ঝোলানো। হদিস নেই বন্ধন ওয়েলফেয়ার সোসাইটির কো-অর্ডিনেটর, হিসাবরক্ষক ও অফিস সহকারীর। সোসাইটির জোন অফিস সদর উপজেলার ৯ নম্বর রায়পুর ইউনিয়নের বিষ্ণুপুর অজোপাড়া গ্রামে। সেখানে চামেলি প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সংস্থার প্রতিবন্ধী স্কুলে বন্ধন ওয়েলফেয়ার সোসাইটি সাইনবোর্ড টানিয়ে তাদের কার্যক্রম চালিয়ে আসছিল। কাগজপত্রে সংস্থাটির প্রধান কার্যালয় দেখানো হয়েছে নারায়ণগঞ্জ জেলার রূপগঞ্জ উপজেলার ভুলতা এলাকা।
 
আরাজি পাইকপাড়া গ্রামের সুমন সাব্বির ও বিশ্বাসপুর গ্রামের সোহাগ আলী জানান, তারা সংস্থাটির সুপারভাইজার পদে নিয়োগ পেতে জামানত হিসেবে ৫০ হাজার টাকা করে জমা দেন।
 
আশরাফুল, আবদুস সবুর, মিজানুর রহমানসহ কয়েক শিক্ষক ও সুপারভাইজার জানান, সুপারভাইজার পদে নিয়োগ পেতে জনপ্রতি ৫০ হাজার, শিক্ষক পদে নিয়োগ পেতে জনপ্রতি ৩ হাজার ৬শ' টাকা এবং ৩৭ হাজার ৫শ' ছাত্রছাত্রীর প্রতিজনের কাছ থেকে রেজিস্ট্রেশন ফি বাবদ ২৫০ টাকা হারে মোট ১ কোটি ৩০ লাখ টাকা আদায় করেন চামেলি প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সংস্থার পরিচালক মোছা. মহসিনা বেগম ওরফে রেনু। এ ব্যাপারে ফোন বন্ধ থাকায় মহসিনা বেগমের সঙ্গে কথা বলা সম্ভব হয়নি।
 
এ ব্যাপারে ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আসলাম মোল্লা জানান, গণশিক্ষার নামে এমন প্রতারণার সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে খুব শিগগির ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তিনি আরও জানান, চামেলি প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সংস্থার পরিচালক মহসিনা বেগম ওরফে রেনু এই অর্থ গ্রহণ করে থাকলে তাকে অবশ্যই টাকা ফেরত দিতে হবে।
 
ইত্তেফাক/এসএস
এই পাতার আরো খবর -
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
২১ জুন, ২০১৮ ইং
ফজর৩:৪৩
যোহর১২:০০
আসর৪:৪০
মাগরিব৬:৫১
এশা৮:১৬
সূর্যোদয় - ৫:১১সূর্যাস্ত - ০৬:৪৬