ঢাকা মঙ্গলবার, ১৯ মার্চ ২০১৯, ৫ চৈত্র ১৪২৫
২৪ °সে

চাকরি দেওয়ার নাম করে ৪ শিক্ষার্থীর নগ্ন ছবি ধারণ

চাকরি দেওয়ার নাম করে ৪ শিক্ষার্থীর নগ্ন ছবি ধারণ
সাতক্ষীরা। ছবিঃ গুগল ম্যাপ থেকে।

ইউএনডিপিতে চাকরি দেওয়ার নাম করে সাতক্ষীরার কলোরোয়া বঙ্গবন্ধু মহিলা কলেজের ৪ শিক্ষার্থীর নগ্ন ছবি মোবাইলে ধারণ করেছে দুই প্রতারক। এ অভিযোগে শ্যামনগর থেকে তাদের দুজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার শ্যামনগরের মুন্সিগঞ্জ বন অফিসের পাশ থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলো, কলারোয়া থানার হিজলদি গ্রামের মৃত হারেজ উদ্দীন মোল্যার ছেলে রফিকুল ইসলাম মোল্যা এবং একই এলাকার নজরুল ইসলাম গাইনের মেয়ে শ্যামলী খাতুন। এদের মধ্যে রফিকুল ইসলাম কলারোয়া সরকারি কলেজের জীববিদ্যা বিভাগের শিক্ষক ছিলেন। তিনি বর্তমানে শিক্ষা অধিদপ্তরের ওএসডি হিসেবে কর্মরত।

মামলার বিবরণে জানা যায়, রফিকুল ইসলাম নিজেকে ইউএনডিপির কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে মোটা অংকের বেতনে চাকরি দেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে বঙ্গবন্ধু মহিলা কলেজের ৪ শিক্ষার্থীর সঙ্গে একই কলেজের শিক্ষার্থী শ্যামলীর মাধ্যমে যোগাযোগ করে। পরে গত বুধবার (২০ ফেব্রুয়ারি) ট্রেনিংয়ের নাম করে তাদের শ্যামনগর উপজেলার একটি এনজিওর গেস্ট হাউজে আনা হয়। ওই দিন সন্ধ্যা ৬টার দিকে প্রতারক রফিকুল ওই ৪ শিক্ষার্থীকে গেস্ট হাউজের কক্ষে আটকে রেখে মেডিকেলের নামে জোরপূর্বক নগ্ন ছবি মোবাইলে ধারণ করে।

এরপর ঘটনাটি ভুক্তভোগী এক শিক্ষার্থী ও মামলার বাদী কৌশলে শ্যামনগর থানাকে অবহিত করে। পরে বৃহস্পতিবার বিকালে পুলিশ ঘটনাস্থলে অভিযান চালিয়ে প্রতারক রফিকুল ও শ্যামলীকে গ্রেফতার করে। এ সময় তাদের কাছ থেকে নগ্ন ছবিসহ একটি আইফোন জব্দ করা হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ সাতক্ষীরার কাদাকাটিতে ট্রলি উল্টে একজন নিহত

শ্যামনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাবিল হোসেন জানান, ‘এ ঘটনায় এক শিক্ষার্থী শ্যামনগর থানায় পর্নোগ্রাফি আইনে ৩০নং মামলা দায়ের করেছে। এ মামলায় গ্রেফতারকৃতদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।’

ইত্তেফাক/নূহু

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
১৯ মার্চ, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন