বিশ্ব সংবাদ | The Daily Ittefaq

ইসরাইলি সেনাকে ফিলিস্থিনি কিশোরীর চড়

ইসরাইলি সেনাকে ফিলিস্থিনি কিশোরীর চড়
অনলাইন ডেস্ক০২ জানুয়ারী, ২০১৮ ইং ২১:৪৫ মিঃ
ইসরাইলি সেনাকে ফিলিস্থিনি কিশোরীর চড়
ইসরাইলের এক সেনাকে চড় মেরে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ঝড় তুলে ফেলেছে ফিলিস্তিনের এক কিশোরী। ১৬ বছরের ফিলিস্তিনি কিশোরী আহেদ তামিমি তার বাড়ির সামনে ইসরায়েলি এক সেনার গালে সপাটে চড় বসিয়ে দেয়। গ্রেপ্তারের পর সামরিক আদালতে দোষী সাব্যস্ত হয়েছে সে, কিন্তু ফিলিস্তিনিদের কাছে সে এখন ইসরায়েলের বিরুদ্ধে প্রতিরোধের প্রতীক হয়ে উঠেছে।
 
সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এখন তার চড় মারার সেই ফুটেজ ভাইরাল হয়ে ঘুরছে। ইসরায়েলের বাম-ঘেঁষা দৈনিক হারেতজ লিখেছে, ইসরাইল যদি আহেদ তামিমির বিচার নিয়ে বাড়াবাড়ি করে, তাহলে এই কিশোরী হয়তো ‘ফিলিস্তিনি জোয়ান আর্ক হয়ে উঠবে।’ অন্যদিকে দক্ষিণপন্থী ইসরাইলিরা সেনাবাহিনীকে আক্রমণ করে লিখছে, কেন তারা ঐ ফিলিস্তিনি কিশোরীর মুখে পাল্টা চড় মারলো না।
ঘটনাটি ঘটে দু সপ্তাহ আগে অধিকৃত পশ্চিম তীরের নাবি সালেহ নামের একটি গ্রামে। বছরের পর বছর ধরে এই গ্রামের লোকজন প্রতি সপ্তাহে একদিন ইসরাইলি দখলদারিত্বের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করে। ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, ঐ বিক্ষোভের সময় ইসরাইলি সেনাদের সঙ্গে আহেদ তামিমির ধাক্কাধাক্কি হচ্ছে। এক পর্যায়ে ঐ কিশোরী সপাটে চড় বসিয়ে দেয় এক সেনার গালে। ইসরাইলি সেনাবাহিনী জানিয়েছে, ঐ চড়ে ঐ সেনা সদস্যের ভ্রু কেটে গেছে। আহেদ তামিমির বিরুদ্ধে বিনা প্ররোচনায় সহিংসতা এবং দায়িত্ব পালনে বাঁধা দেয়ার অভিযোগ আনা হয়েছে। সামরিক আদালতে সে দোষী সাব্যস্ত হয়েছে।
এই ধরণের দুঃসাহসিক কাজ এই কিশোরী আগেও করেছে। দু’বছর আগে তাকে গ্রেপ্তারের চেষ্টার সময় সে ইসরাইলি সেনার হাত কামড়ে দিয়েছিলো। তারও আগে ২০১২ সালে ইসরাইলি সেনাদের সাহসের সঙ্গে মোকাবেলার জন্য তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়িপ এরদোয়ান তাকে আমন্ত্রণ করে নিয়ে গিয়ে পুরস্কৃত করেছিলেন। আহেদ তামিমির বয়স তখন ছিল মাত্র ১১ বছর। বিবিসি।
 
ইত্তেফাক/সেতু
 
এই পাতার আরো খবর -
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং
ফজর৪:৩৪
যোহর১১:৫১
আসর৪:১১
মাগরিব৫:৫৪
এশা৭:০৭
সূর্যোদয় - ৫:৪৮সূর্যাস্ত - ০৫:৪৯