বিশ্ব সংবাদ | The Daily Ittefaq

ফিলিস্তিনি শরণার্থীদের যুক্তরাষ্ট্রের সাহায্য বন্ধ ঘোষণা

ফিলিস্তিনি শরণার্থীদের যুক্তরাষ্ট্রের সাহায্য বন্ধ ঘোষণা
অনলাইন ডেস্ক০১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং ১২:৪৬ মিঃ
ফিলিস্তিনি শরণার্থীদের যুক্তরাষ্ট্রের সাহায্য বন্ধ ঘোষণা
ফিলিস্তিনের শরণার্থীদের জন্য সাহায্য বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। ফিলিস্তিনিদের জন্য কাজ করা জাতিসংঘের রিলিফ এন্ড ওয়ার্কস এজেন্সি (ইউএনআরডব্লিউএ) এর সব সহযোগিতা বন্ধের ঘোষণা দেয় দেশটির স্টেট ডিপার্টমেন্ট।
 
স্টেট ডিপার্টমেন্টের মুখপাত্র হিদার নরেট ইউএনআরডব্লিউএ’র কার্যক্রমকে ‘অবিশ্বাস্যভাবে ত্রুটিপূর্ণ’ বলে উল্লেখ করেছেন। তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের কর্তৃপক্ষ সতর্কতার সঙ্গে বিষয়টি পর্যালোচনা করে ইউএনআরডব্লিউকে দেয়া অতিরিক্ত সাহায্য বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।
 
যুক্তরাষ্ট্রের এমন সিদ্ধান্তের তীব্র নিন্দা জানিয়েছে ফিলিস্তিন কর্তৃপক্ষ। প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসের একজন মুখপাত্র নাবিল আবু রুদেইনা রয়টার্সকে বলেছেন, এই অঞ্চলে স্থিতিশীলতার জন্য যুক্তরাষ্ট্রের যে কোনও ভুমিকা নেই সেক্ষেত্রে এই সিদ্ধান্ত কোনও পরিবর্তন আনতে পারবে না। এটা সমাধানের কোনও অংশও নয়।
 
ফিলিস্তিনিদের জন্য তহবিল বৃদ্ধি করবে জার্মানি
 
যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তা কমানোর পর জাতিসংঘের বিভিন্ন সংস্থাকে ফিলিস্তিনি শরণার্থীদের জন্য অর্থায়ন উল্লেখযোগ্যভাবে বৃদ্ধির প্রতিশ্রুতি দিয়েছে জার্মানি। দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিকো ম্যাস বলেছেন, জাতিসংঘের ত্রাণ ও কর্ম সংস্থার (ইউএনডব্লিউআরএ) জন্য তহবিল সংকটে অনিশ্চয়তার কারণে এ ভর্তুকি দেওয়া হচ্ছে।
 
তিনি আরো বলেন, এ সংস্থার ক্ষতি হলে একটি ধারাবাহিক নিয়ন্ত্রণহীন পরিস্থিতির সৃষ্টি হতে পারে। ইতোমধ্যে ইউএনডব্লিউআরএ-কে এ বছর জার্মানি ৯৪ মিলিয়ন ডলার সাহায্য প্রদান করেছে। এ তথ্যের সূত্র ধরে জার্মান পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এ সহায়তা আরো বৃদ্ধি করার জন্য আমরা প্রস্তুত হচ্ছি। তবে অর্থ সহায়তার পরিমাণ সম্পর্কে তিনি কিছু বলেননি।
 
ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের দেওয়া এক চিঠিতে ম্যাস বলেন, বর্তমানে আমরা অতিরিক্ত তহবিলের জন্য গুরুত্বপূর্ণ সহায়তা করতে প্রস্তুতি নিচ্ছি। তিনি আরো বলেছেন, এটা খুব স্পষ্ট যে ২১৭ মিলিয়ন ডলারের তহবিল থেকে যুক্তরাষ্ট্র তার অংশ প্রত্যাহার করে নেওয়ায় পর জার্মানির সহায়তা সেই ঘাটতি পূরণ করবে না।
 
তাই এ বিষয়ে তিনি ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন ও অন্যান্য রাষ্ট্রকে ইউএনডব্লিউআরএ-কে একটি টেকসই অর্থ ব্যবস্থাপনার প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার জন্য কাজ করার আহ্বান জানান। এ পদক্ষেপকে বাণিজ্যিক, সামরিক ব্যয় ও জলবায়ু পরিবর্তনসহ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয়ের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের সম্পর্কের বৃহত্তর ধাপের অংশ বলেছেন ম্যাস।
 
ইত্তেফাক/কেআই
এই পাতার আরো খবর -
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং
ফজর৪:৩২
যোহর১১:৫১
আসর৪:১২
মাগরিব৫:৫৬
এশা৭:০৯
সূর্যোদয় - ৫:৪৭সূর্যাস্ত - ০৫:৫১