বিশ্বকাপ ফুটবল | The Daily Ittefaq

জাপানের ফর্ম নিয়ে চিন্তিত আত্মবিশ্বাসী বেলজিয়াম

জাপানের ফর্ম নিয়ে চিন্তিত আত্মবিশ্বাসী বেলজিয়াম
অনলাইন ডেস্ক০২ জুলাই, ২০১৮ ইং ১১:৩৫ মিঃ
জাপানের ফর্ম নিয়ে চিন্তিত আত্মবিশ্বাসী বেলজিয়াম
নক আউট পর্বের গুরুত্বপূর্ণ লড়াইয়ে আজ সোমবার জাপানের বিপক্ষে মাঠে নামবে বেলজিয়াম। আত্মবিশ্বাসের কমতি নেই দলের মধ্যে। কিন্তু তাদের এশীয় প্রতিপক্ষও প্রায় একই ধরনের দারুণ ভারসাম্যপূর্ণ একটি দল। তাই জাপানের বিরুদ্ধে তারকা সমৃদ্ধ বেলজিয়াম নিজেদের কতটা এগিয়ে নিতে পারে তা নিয়ে বেশ চিন্তিত রেড ডেভিলসরা।
 
ভিন্ন ভিন্ন পারফরমেন্স দিয়ে এই দুটি দল নক আউট পর্বে খেলতে এসেছে। গ্রুপের শেষ ম্যাচে পোল্যান্ডের কাছে ১-০ গোলে পরাজিত হলেও কম হলুদ কার্ড পাওয়া সেনেগালকে পিছনে ফেলে ‘ফেয়ার প্লে’ রেকর্ডে এগিয়ে থেকে এইচ-গ্রুপের রানার্স-আপ হয় জাপান।
 
অন্যদিকে ইংল্যান্ডকে শেষ ম্যাচে ১-০ গোলে পরাজিত করে জি-গ্রুপের শীর্ষ দল হিসেবে শতভাগ জয় নিয়েই নক আউট পর্বে উঠেছে বেলজিয়াম। 
 
২২ ম্যাচে অপরাজিত থাকা রবার্তো মার্টিনেজের দল গত নভেম্বরে ঘরের মাটিতে প্রীতি ম্যাচে জাপানকে ১-০ গোলে পরাজিত করেছিল। ম্যাচটিতে জয়সূচক গোলটি করেছিলেন রোমেলু লুকাকু। রাশিয়ায় এ পর্যন্ত লুকাকু দুই ম্যাচে চার গোল করেছেন। গোঁড়ালির ইনজুরি কাটিয়ে জাপানের বিপক্ষে তিনি আবারো দলে ফিরতে যাচ্ছেন।
 
ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সেন্টার ফরোয়ার্ড লুকাকু এবারের বিশ্বকাপের গোল্ডেন বুট প্রাপ্তির ক্ষেত্রে একজন শক্ত প্রার্থী
 
বেলজিয়ামের কাছে নভেম্বরের প্রীতি ম্যাচে পরাজিত হবার পরেই তৎকালীন জাপানী কোচ ভাহিদ হালিহোজিককে বরখাস্ত করে তার স্থানে আকিরা নিশিনোকে বিশ্বকাপ দলের দায়িত্ব দেয়া হয়।
 
বেলজিয়ামের স্প্যানিশ কোচ অবশ্য অতীত নিয়ে ভাবছেন না। আজকের ম্যাচকে সামনে রেখে তিনি বলেন, ‘বার্জেসে কিছুদিন আগে আমরা দারুন একটি ম্যাচ খেলেছি। এখন জাপানের কোচ পরিবর্তিত হয়েছে। কিন্তু দলে তেমন কোন পরিবর্তন হয়নি। তারা খুবই সংঘবদ্ধ একটি দল। টেকনিক্যালি তারা দারুন। জাপানিজ ফুটবল বেশ শক্তিশালী। দারুন প্রতিদ্বন্দ্বীতামূলক একটি ম্যাচের আশা করছি । তবে এখানে কোন বিস্ময় অপেক্ষা করছেনা।
 
রোস্তোভ এরিনার ম্যাচটিতে লুকাকু, থমাস ভারমালেন, ভিনসেন্ট কোম্পানিকে ফিট ঘোষনা করেছেন মার্টিনেজ। তার মতে নক আউট পর্বে কোন দলই আশা করতে পারেনা যে প্রতিপক্ষ তাদেরকে এগিয়ে যাবার সুযোগ সৃষ্টি করে দিবে। বিশ্বকাপে সাফল্য পেতে হলে আমার মতে সামনে কোন সহজ পথ থাকেনা। দুই বছর আগে ইউরোতেও আমরা একই পরিস্থিতি দেখেছি।
 
জাপানের সাউদাম্পটন সেন্টার ব্যাক ইয়োশিদা বলেন, এর আগে আমরা কখনই বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে খেলিনি। এটা আমাদের জন্য একটি নতুন চ্যালেঞ্জ। আশা করছি জাপানিজ ফুটবলের জন্য নতুন ইতিহাস রচনা করতে পারবো। আমি জানি লুকাকু একজন দুর্দান্ত খেলোয়াড়। আমি একা তাকে আটকাতে পারবোনা। একটি দল হিসেবে তাদের বিরুদ্ধে আমাদের লড়তে হবে।
 
ইংলিশ অধিনায়ক হ্যারি কেনের থেকে এক গোল পিছিয়ে চার গোল করা ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সেন্টার ফরোয়ার্ড লুকাকু এবারের বিশ্বকাপের গোল্ডেন বুট প্রাপ্তির ক্ষেত্রে একজন শক্ত প্রার্থী। জাপানিজ রক্ষণভাগকে গুড়িয়ে দেবার ক্ষমতা লুকাকুর আছে। বাসস।
 
ইত্তেফাক/ জেআর
এই পাতার আরো খবর -
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং
ফজর৪:৩২
যোহর১১:৫৩
আসর৪:১৬
মাগরিব৬:০১
এশা৭:১৩
সূর্যোদয় - ৫:৪৬সূর্যাস্ত - ০৫:৫৬