ইউপিএলের প্রতিষ্ঠাতা মহিউদ্দিন আহমেদ আর নেই

ইউপিএলের প্রতিষ্ঠাতা মহিউদ্দিন আহমেদ আর নেই
ইউপিএলের প্রতিষ্ঠাতা মহিউদ্দিন আহমেদ। ছবি: সংগৃহীত

প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান ইউনিভার্সিটি প্রেস লিমিটেডের (ইউপিএল) প্রতিষ্ঠাতা মহিউদ্দিন আহমেদ আর নেই। সোমবার দিবাগত রাত ১টার দিকে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

প্রায় ২০ বছর ধরে মস্তিষ্কের রোগ পারকিনসন’স-এ ভুগছিলেন মহিউদ্দিন আহমেদ। কিছুদিন আগে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হন তিনি। সেখান থেকে সেরে উঠেছিলেন। অবশেষে সোমবার দিবাগত রাতে ৭৭ বছর বয়সে চলে গেলেন। মঙ্গলবার (২২ জুন) বাদ জোহর গুলশানের আজাদ মসজিদে তার জানাজা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

ইউপিএলের প্রতিষ্ঠাতা মহিউদ্দিন আহমেদ আর নেই

অ্যারিজোনার বেনসনে অবস্থিত ‘ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি’র আন্তর্জাতিক কার্যালয় থেকে ১৯৮৮ সালে মহিউদ্দিন আহমেদকে ‘পাবলিশিং ম্যানেজমেন্ট’ (প্রকাশনা ব্যবস্থাপনা) বিষয়ে ‘কালচারাল ডক্টোরেট’ ডিগ্রি প্রদান করা হয়।

তার মেয়ে ইউপিএলের পরিচালক মাহরুখ মহিউদ্দিন জানান, রাত ১২টা ৫৯ মিনিটে তার বাবা মারা যান। কিছুদিন আগে তিনি কোভিড সেরে উঠেছিলেন। মাহরুখ বলেন, দীর্ঘ প্রায় ২০ বছর বাবা পারকিনসন্সে ভুগছিলেন। বেশ কিছুদিন ধরে বার্ধক্যজনিত অসুস্থতাও ছিল। এভারকেয়ার হাসপাতালে কিছুদিন ধরে চিকিৎসা নিচ্ছিলেন।

My father, Publisher Emeritus Mohiuddin Ahmed breathed his last at 12:59am this morning, at the age of 77. His...

Posted by Mahrukh Mohiuddin on Monday, June 21, 2021

১৯৪৪ সালে ফেনীর পরশুরামে জন্মগ্রহণ করেন মহিউদ্দিন আহমেদ। তার বাবা ছিলেন ব্রিটিশ ইন্ডিয়ান পোস্টাল সার্ভিসের একজন উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা। নটর ডেম কলেজ থেকে পড়াশোনা শেষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতায় ভর্তি হন। সেখান থেকে পড়া শেষ করে পাকিস্তান কাউন্সিল স্কলারশিপ নিয়ে পাঞ্জাব বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা বিষয়ে পড়াশোনা করেন। এমএ শেষ করে তিনি পাকিস্তান টাইমসে শিক্ষানবিশ সাংবাদিক হিসেবে যোগদান করেন।

১৯৭২ সাল পর্যন্ত নানা দায়িত্ব পালন করে স্বাধীন দেশে ফিরে আসেন। তার নেতৃত্বে ১৯৮১ সাল থেকে মোট ১৬ বার ইউপিএল ‘ন্যাশনাল বুক সেন্টার’ পুরস্কার লাভ করে। ১৯৯১ সালে তিনি স্বর্ণপদকে ভূষিত হন। পরিবেশের উন্নয়নে অবদান রাখার জন্য নরওয়ের প্রধানমন্ত্রী সারা বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে মোট ১৭ জন প্রকাশককে স্বীকৃতি প্রদানের জন্য আমন্ত্রণ জানান। মহিউদ্দিন ছিলেন তাদের মধ্যে একজন।

গ্রন্থনীতি বাস্তবায়ন করলে গ্রন্থ উন্নয়ন ত্বরান্বিত হবে | সাক্ষাৎকার |  ঢাকা টাইমস

২০১২ সালে মহিউদ্দিন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’ প্রকাশ করেন। ১৯৬৬-৬৯ সময়কালে কারাগারে বন্দীদশায় বঙ্গবন্ধু দিনলিপি আকারে এই আত্মজীবনী লিখেছিলেন। বাংলা ভাষার পাশাপাশি বইটি একইসঙ্গে ভারত (পেঙ্গুইন) ও পাকিস্তানে (ওইউপি) ইংরেজি ও উর্দু ভাষায় প্রকাশ করার ব্যবস্থাও তিনি করেন।

২০১৪ সালে ‘বাংলাদেশ অ্যাকাডেমিক অ্যান্ড ক্রিয়েটিভ পাবলিশার্স অ্যাসোসিয়েশন’ কর্তৃক প্রদত্ত ‘ইমেরিটাস পাবলিশার’ পদবি লাভ করেন মহিউদ্দিন আহমেদ।

ইত্তেফাক/জেডএইচডি

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x