প্রবাসী মেয়েদের টার্গেট করে লাখ লাখ টাকা প্রতারণা

প্রবাসী মেয়েদের টার্গেট করে লাখ লাখ টাকা প্রতারণা
গ্রেফতার হওয়া হ্যাকার মামুন। ছবি: সংগৃহীত

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের প্রবাসী নারীদের টার্গেট করে প্রতারণার মাধ্যমে ইউরোপের বিভিন্ন দেশে বসবাসরত প্রবাসী নারীদের সঙ্গে ফেসবুকের বিভিন্ন গ্রুপের মাধ্যমে পরিচিত হতেন যিনি।

বুধবার (২৩ জুন) ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান ডিবির অতিরিক্ত কমিশনার এ.কে.এম হাফিজ আক্তার।

জানা যায়, মামুন মিয়া (২০) সুনামগঞ্জের হাওর এলাকার বাসিন্দা। তিনি এস. এস. সি. পাশ করা এই তরুণ নিজেকে অপ্রতিরোধ্য ঘোষণা করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক ব্যবহার করে বিভিন্ন নারীদের সঙ্গে প্রতারণা করে আসছিলেন। মামুনের বয়স কম হলেও সে প্রতারণায় পাকা। এরই মধ্যে সে বহু নারীদের আইডি হ্যাক করে বিপুল পরিমাণ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। এ টাকা দিয়ে বিলাসী জীবন যাপন করতো সে।

No description available.

ডিবির অতিরিক্ত কমিশনার, নারী সেজে বিভিন্ন ছেলেদেরকেও পাঠাতো ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট। এরপর ফেসবুকের মতো দেখতে হুবহু নকল আরেকটি সাইট তৈরি করে সেই লিংক ইনবক্সে শেয়ার করে বলতেন, আমি একটি ফটো কনটেস্টে অংশগ্রহণ করেছি। আমাকে একটি ভোট দিন। তাকে ভোট দেয়ার জন্য ওই লিংকে ক্লিক করে প্রবেশ করতে চাইলে নতুন করে আইডি ও পাসওয়ার্ড দিতে হতো। এভাবে নারীদের আইডি হ্যাক করে নিতেন টাকা আদায় করতো এই তরুণ।

হাফিজ আক্তার বলেন, গ্রেপ্তার মামুন স্থানীয় একটি ট্রেনিং সেন্টার থেকে আইটির উপর একটি কোর্স করে প্রতারণা শুরু করেন মামুন। অভিনব কায়দায় প্রতারণার পাশাপাশি ভুক্তভোগী নারীদের বলতেন, তার প্রতারণার কৌশল কেউ প্রমাণ করতে পারবে না বলে চ্যালেঞ্জ দিতেন। তাকে ধরতে পারলে ১ হাজার ডলার পুরস্কার দেয়ার ঘোষণা দেন মামুন।

ইত্তেফাক/কেএইচ/এনএ

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x