ঢাবিতে মুখোমুখি অবস্থানে ছাত্রলীগ-ছাত্রদল

প্রকাশ : ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১২:২৬ | অনলাইন সংস্করণ

  বিশ্ববিদ্যালয় রিপোর্টার

মধুর ক্যান্টিনে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। ছবি : আব্দুল গনি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে ছাত্রলীগ ও ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা মুখোমুখি অবস্থান নিয়েছে। উভয় দলের নেতা-কর্মীরা স্লোগান দিতে থাকে। এতে মধুর ক্যান্টিনে উত্তপ্ত পরিস্থিতি বিরাজ করছে।

 

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের কমিটি গঠিত হয়েছে গত বৃহস্পতিবার। সারারাত ভোট গ্রহণের পর সকালে নতুন কমিটির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পান ফজলুর রহমান খোকন এবং সাধারণ সম্পাদক হন ইকবাল হোসেন শ্যামল। দায়িত্ব পাওয়ার পর প্রথমবারের মতো আজ সকাল ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে আসে খোকন-শ্যামল কমিটি।

 

এদিকে ছাত্রদলের মধুর ক্যান্টিনে আগমনের খবর আগে থেকে প্রচারিত হওয়ায় সতর্ক অবস্থান নিয়েছে ছাত্রলীগের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা। দীর্ঘদিন পর ছাত্রদলের নতুন কমিটি এবং ছাত্রলীগ মধুর ক্যান্টিনে একসাথে অবস্থান গ্রহণ নেয়। এ সময় উভয় দলের নেতা-কর্মীরা স্লোগান দিতে থাকে। এতে মধুর ক্যান্টিনে উত্তপ্ত পরিস্থিতি বিরাজ করছে।

 

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, ছাত্রদলের মধুর ক্যান্টিনে আসার খবর পেয়ে সতর্ক অবস্থান নেয় ছাত্রলীগ। সকাল ১১টায় ছাত্রদলের আসার কথা থাকলেও সকাল ৮টা থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ে শো-ডাউন দেয় তারা। অন্যদিন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ১০টার পরে মধুর ক্যান্টিনে আসলেও আজ ৮টা থেকে আসা শুরু করেন।

 

কর্মসূচি নিয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেয় ছাত্রলীগের বেশ কিছু কর্মী। তারা তাদের স্ট্যাটাসে লেখে, ‘ছাত্রদলের চাচ্চুরা দেখে যা, রাজপথে তোর বাপেরা......। চাচ্চুরা নাকি আজকে ক্যাম্পাস অস্থিতিশীল করতে আসতে চাচ্ছিলো তাই তাদের প্রতিহত করতে ছাত্রলীগ সদা জাগ্রত।’

আরো পড়ুন : ৭ ঘণ্টা পর শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী রুটে ফেরি চলাচল শুরু

ছাত্রদলের আসার খবরে শো-ডাউনের বিষয়টি অস্বীকার করেন কবি জসিম উদ্দীন হল ছাত্রলীগের সভাপতি আরিফ হোসেন। তিনি বলেন, ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা সুষ্ঠু ধারার রাজনীতিতে বিশ্বাসী। ভিন্ন মতকে আমরা যুক্তি দিয়ে মোকাবেলা করি, পেশিশক্তি দিয়ে নয়। ছাত্ররাজনীতির আতুর ঘর মধুর ক্যান্টিনে অবস্থান আমাদের রুটিন ওয়ার্ক। এর সঙ্গে ছাত্রদলের আসা যাওয়ার কোনো সম্পৃক্ততা নেই। আমরা সবসময়ই বলি, যারা নিয়মিত ছাত্র তারা অবশ্যই মধুর ক্যান্টিনে আসবে।

 

ইত্তেফাক/ইউবি