আবারও বন্ধ সিনেমা হল

আবারও বন্ধ সিনেমা হল
আনন্দ সিনেমা হল। ছবি: ইত্তেফাক

করোনার সংক্রমণ থেকে কিছুটা স্বাভাবিক জীবনে যাওয়ার চেষ্টার আগেই আবারও শুরু হয়েছে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ। করোনা পরিস্থিতির অবনতি হওয়ায় ৫ এপ্রিল থেকে সারাদেশে এক সপ্তাহের লকডাউন ঘোষণা করেছে সরকার। ফলে স্বভাবতই বন্ধ হয়েছে রাজধানীর সিনেমা হলগুলো।

বেলা ১২ দিকে রাজধানীর ফার্মগেট আনন্দ সিনেমা হলে গিয়ে দেখা যায়, গতকাল পর্যন্ত এই সিনেমা হলে চলছিলো সেলিম খান পরিচালিত ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়া ভাই’ ছবি। কিন্তু আজ হলের মূল ফটকই খোলা হয়নি। টিকিট কাউন্টারও বন্ধ। মেইন গেট বন্ধ করে ভেতরে বসে আছেন সিনেমা হলের কর্মীরা। হলের ফাঁকা চত্বরে কয়েকজন ঘোরা ফেরা করছে।

আনন্দ সিনেমা হলের কর্মকর্তা ফারুক জানান, ‘আমাদের সিনেমা হলে এখন ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়া ভাই’ ছবিটি চলছে। গতকালও আমরা সিনেমা চালিয়েছি। দেশে লকডাউনের জন্য আজ থেকে সিনেমা হল বন্ধ রয়েছে। এটা আমাদের জন্য ভীষণ ক্ষতি।’

রাজধানীর বসুন্ধরা শপিং কমপ্লেক্সের স্টার সিনেপ্লেক্সে গিয়ে যায়, শপিং মল পুরোটাই বন্ধ। সিনেমা দেখতে আসা মো. শামীম বলেন, ‘লকডাউন ঘোষণা করা হলেও প্রথমদিন অনেক ঢিলেঢালাভাবে লকডাউন পালন হচ্ছে। বাসা সিনেমা হলের কাছে হওয়ায় আজ ‘গডজিলা ভার্সেস কং’ ছবিটি দেখতে এসেছিলাম। কিন্তু এসে দেখি স্টার সিনেপ্লেক্স বন্ধ।’

স্টার সিনেপ্লেক্সের চেয়ারম্যান মাহবুব রহমান রুহেল বলেন, ‘গত বছর বাংলাদেশে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হওয়ার পর থেকে সতর্কতামূলক বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ স্টার সিনেপ্লেক্সের সবগুলো শাখায় সিনেমা প্রদর্শন বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে সকলে নিজের সুরক্ষার জন্য সচেতন থাকবেন। পরিস্থিতি অনুকূল হলে আবার আমরা একসঙ্গে মিলিত হবো, আপনাদের পদচারণায় মুখরিত হবে স্টার সিনেপ্লেক্স প্রাঙ্গণ।’

বলাকা সিনেমা হলে গিয়ে দেখা যায়, সিনেমা হলের মূল ফটকে তালা ঝুলছে। সেখানকার নিরাপত্তারক্ষীরা জানান, গতবছরের পর থেকেই সিনেমা হলটি আজও চালু করা হয়নি। সম্প্রতি এই হলে ছবি আসার কথা ছিলো কিন্তু তার আগেই করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে দেশে লকডাউনের নির্দেশ এলো।

ইত্তেফাক/বিএএফ

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x