বিচারকরা বাঁধনকে কী বললেন

বিচারকরা বাঁধনকে কী বললেন
ছবি: বিচারকদের সাথে আজমেরী হক বাঁধন।

কান চলচ্চিত্র উৎসবের ৭৪তম আসরের আঁ সার্তে রিগা বিভাগ থেকে পুরস্কার না জিতলেও খালি হাতে ফিরছেন না ‘রেহানা মরিয়ম নূর’টিম। বরং বিচারকদের অফুরন্ত ভালোবাসা নিয়ে ফিরছেন দেশের নাম উজ্জ্বলকারী এই নক্ষত্ররা।

বিচারকদের মন জয় করে দেশের জন্য কতটা ভালোবাসা অর্জন করেছেন তা খুব ভালো করে দেখতে পাওয়া যায় আজমেরী হক বাঁধনের ফেসবুক লাইভে। যেখানে তিনি উপস্থিত ছিলেন বিচারকদের সঙ্গে। বিচারকদের প্রশংসায় ভাসতে দেখা গেছে ‘রেহানা মরিয়ম নূর’এর প্রধান চরিত্রে অভিনয় করা আজমেরী হক বাঁধনকে। তিনি বেশ কিছু কথা বলেন বিচারকদের সঙ্গে।

বিচারকেরা ছবিটিতে বাঁধনের অভিনয়ের প্রশংসা করেন এবং বাঁধনকে বলেন, ‘দয়া করে আপনি কষ্ট পাবেন না, আপনি অনেক ভালো অভিনয় করেছেন এবং আপনাকে এখানে পেয়ে আমরা আনন্দিত।’

তারা আরও বলেন, ‘আপনি এখানে উপস্থিত হয়েছেন এটাই অনেক বড় একটা পুরস্কার।’

পরেই বিচারকরা একটু মন খারাপ করে তাকে বলেন, ‘আমাদের অনেক খারাপ লেগেছে আপনাদের পুরস্কার দিতে না পেরে, আরও পুরস্কার থাকা উচিৎ ছিল।’

পুরস্কার জিততে না পেরেও তাদের কাছ থেকে ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ ছবিটির টিম এবং দেশের জন্য ভালোবাসা, শুভকামনা পেয়ে বাঁধন অনেক গর্বিত।

গত বুধবার (৭ জুলাই) কানের সাল দুবুসিতে ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ -এর উদ্বোধনী প্রদর্শনীর মধ্যদিয়ে ইতিহাস গড়ে বাংলাদেশ। কানের অফিশিয়াল সিলেকশনে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশি কোনো সিনেমা অংশগ্রহণ করে। এর কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করেছেন আজমেরী হক বাঁধন।

প্রদর্শনীর পর বেশ প্রশংসা কুড়ায় ছবিটি। সমালোচকদের অনেকে ছবিটির পুরস্কার পাওয়ার সম্ভাবনাও দেখেছিলেন। ৭৪তম কানের আঁ সার্তে রিগায় ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ প্রতিযোগিতা করে ২০টি ছবির সঙ্গে।

কান চলচ্চিত্র উৎসবের আঁ সার্তেঁ রিগায় গ্র্যান্ড প্রাইজ পেয়েছে রাশিয়ার ছবি ‘আনক্লেনচিং দ্য ফিস্টস’। এই বিভাগে বাংলাদেশের ছবি ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ অংশগ্রহণ করে ইতিহাস সৃষ্টি করে।

ছবিটির কলাকুশলীরা হলেন- পরিচালক আবদুল্লাহ মোহাম্মদ সাদ, অভিনেত্রী আজমেরী হক বাঁধন, সিঙ্গাপুরের প্রযোজক জেরেমি চুয়া, চিত্রগ্রাহক তুহিন তমিজুল, প্রোডাকশন ডিজাইনার আলী আফজাল উজ্জ্বল, শব্দ প্রকৌশলী শৈব তালুকদার, কালারিস্ট চিন্ময় রয় এবং নির্বাহী প্রযোজক এহসানুল হক বাবু।

ইত্তেফাক/এনএসএন

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x