বৃষ্টির দিনে চুলের যত্ন

বৃষ্টির দিনে চুলের যত্ন
ছবি : সাফাওয়াত খান সাফু

বর্ষা আসতে না আসতেই অনেকের খুশকির সমস্যা শুরু হয়। নিত্যদিনের কর্মব্যস্ততায় ঠিকঠাক যত্নের অভাবে চুল হয়ে পরে প্রাণহীন, নির্জীব। চুলের অপরিচ্ছন্নতার কারণে কিছু সাধারণ সমস্যা হয়ে থাকে। এর মধ্যে অন্যতম উজ্জ্বলতা ও মসৃণতা কমে যাওয়া। এক্ষেত্রে ঘরোয়া যত্ন নিলে চুলে জেল্লা ফিরবে পাশপাশি প্রাণও ফিরে আসবে।

যাদের চুল স্ট্রেট, নীচের অংশ ঢেউ খেলানো কিন্তু অযত্নে খসখসে হয়ে গেছে তারা সপ্তাহে দুইবার খাঁটি নারকেল তেল গরম করে চুলে লাগাতে পারেন। এরপর গরম পানিতে তোয়ালে ডুবিয়ে নিয়ে অতিরিক্ত পানি চিপে চুলে ৫ মিনিট জড়িয়ে রেখে পুনরায় গরম পানিতে ভিজিয়ে ৩-৪বার রিপিট করুন। এতে চুলে এবং স্ক্যাল্পে তেল ভালো মতো অ্যাবসর্ব হবে। পরদিন অল্প মাইল্ড হারবাল শ্যাম্পু দিয়ে ভালোভাবে চুল ধুয়ে নিন। শ্যাম্পু করার পর কোনো নারিশিং ক্রিম কন্ডিশনার ব্যবহার করুন। চুলে নীচের অংশে আলতো করে ম্যাসাজ করে ২ মিনিট রেখে পানি দিয়ে ভালোভাবে ধুয়ে নিন। চুল এরপরও নিষ্প্রাণ হলে লিভ-ইন কন্ডিশনার ব্যবহার করতে পারেন। শেষে ব্যবহার করবেন হেয়ার সেরাম।

খুশকি থেকে মুক্তি পেতে মেথি ব্যবহার করতে পারেন। ২ টেবিল চামচ মেথি সারারাত জলে ভিজিয়ে রাখুন। পরদিন পানিসমেত বেটে নিয়ে তাতে ১ টেবলচামচ অলিভ অয়েল এবং ১ টেবলচামচ পাতিলেবুর রস মিশিয়ে স্ক্যাল্পে লাগিয়ে রাখুন আধঘণ্টা। তারপর পানি দিয়ে ভাল করে ধুয়ে নিন। মেহেদিও খুশকি প্রতিরোধে কার্যকরী। চুলের দৈর্ঘ্য বিবেচনা করে মেহেদি গুঁড়ার সাথে ২টা ডিম, ৪ চা চামচ পাতিলেবুর রস, ৪ চা চামচ কফিগুঁড়া এবং পর্যাপ্ত পরিমাণে টক দই মিশিয়ে ঘন মিশ্রণ তৈরি করুন। এই মিশ্রণ স্ক্যাল্পসহ চুলে লাগিয়ে আধঘণ্টা রেখে ধুয়ে নিন।

ইত্তেফাক/আরএম

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x