কোভিডের পর কি চুল ঝরে যাচ্ছে

কোভিডের পর কি চুল ঝরে যাচ্ছে
ছবি: শেহতাজ শরীফ

কোভিড থেকে সুস্থ হওয়ার পর বিভিন্ন শারীরিক জটিলতা তৈরি হতে পারে। করোনা সংক্রমণ থেকে সেরে ওঠার পর যে শুধু শ্বাস-প্রশ্বাসের সমস্যা থাকবে এমনটা নয়, হঠাৎ দুর্বল লাগা, মাথা ঘোরা, খাওয়ায় অরুচি, হজমের সমস্যা, ঘুম কম হওয়া, ক্লান্তি-অবসাদ এগুলোও হতে পারে। এর পাশাপাশি অনেকের মধ্যেই চুল ঝরে পড়ার প্রবণতা লক্ষ করা যায়।

করোনা সংক্রমণের পর থেকে দুই মাস চুল পড়তেই পারে। এটাকে বলা হয় টেলোজেন এফ্লুভিয়াম। চুলের স্বাভাবিক বেড়ে উঠা বা ঝরে পড়ার প্রক্রিয়াটাতে ব্যাঘাত ঘটায়, অন্য রকম করে দেয়। ফলস্বরূপ চুল পড়তে থাকে আর উদ্বিগ্ন হওয়াটাও পাল্লা দিয়ে বাড়তে থাকে। তখন কমবেশি সবারই মন খারাপ হয়ে যায়। সেই সঙ্গে তৈরি হয় গভীর উদ্বেগ। চুল পড়া রোধ করতে জেনে নিন কিছু স্বাস্থ্যকর উপায়।

যদি কেউ কোভিড পরবর্তী চুল ঝরে পড়ার সমস্যায় ভুগেন তাহলে অহেতুক আতঙ্কিত হওয়ার কোনো দরকার নেই। বিবিধ প্রোডাক্ট ব্যবহার করবেন না। বরং ওমেগা-৩, ফলিক অ্যাসিড, ফ্যাটি অ্যাসিড ইত্যাদি উপাদান পেতে বিভিন্ন পাউডার বা হেলথ ড্রিঙ্ক না পান করে নিজের রান্নাঘরকে আবার নতুন করে আবিষ্কার করুন, রান্নাঘরে থাকা উপকরণ দিয়ে উপায় খুঁজে বের করুন।

চুলের জন্য প্রোটিন, আয়রন ও ক্যালশিয়াম খুব দরকারি। কোভিডের পর শরীরে ভিটামিন ডি কমে যায়, তাই নির্দিষ্ট সময় রোদে থাকাতে পারেন। সেটা বাড়ির ছাদ বা বারান্দা দুইটাই হতে পারে। বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে মাল্টি ভিটমিন ও প্রোবায়োটিকের কিছু ওষুধ খেতে পারেন। এসময় ব্যালেন্সড ডায়েট খুব জুরুরি। কম তেল-মশলা দেওয়া খাবার কোভিড সেরে যাওয়ার পরও খেতে হবে প্রায় এক মাস। বেশি বেশি করে ফল, সবজি, পনির, ছানা জাতীয় খাবার খেতে পারেন।

ব্রেকফাস্টে এক চা চামচ মাখন খেতে পারেন। প্রত্যেক দিন বিভিন্ন বীজ-ঘি-গুড় ইত্যাদি দিয়ে তৈরি লাড্ডু খেতে পারেন। সময়ের খাবার সময়ে খাবেন। রাতজাগার অভ্যাস থাকলে বাদ দেওয়ার চেষ্টা করুন। দ্রুত ঘুমিয়ে পড়ার অভ্যাস তৈরি করুন। যারা সদ্য করোনা থেকে মুক্তি পেয়েছেন তাদের জন্য এই টিপসগুলো খুব উপকারী হবে। এছাড়াও যারা দীর্ঘদিন ধরে চুল পড়ার সমস্যায় ভুগছেন তাদের জন্যও এই পরামর্শগুলো উপকারী হতে পারে।

ইত্তেফাক/আরএম

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x