ঢাকা সোমবার, ২০ মে ২০১৯, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬
২৭ °সে


দেশে জনগণের মালিকানা না থাকলে স্বাধীনতাও থাকে না: ড. কামাল

দেশে জনগণের মালিকানা না থাকলে স্বাধীনতাও থাকে না: ড. কামাল
৫ নেতা মাজার জিয়ারতের মাধ্যমে ধানের শীষের আনুষ্ঠানিক নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেন ড. কামাল। ছবি : ফোকাস বাংলা

সিলেটে হযরত শাহজালাল (র.) ও হযরত শাহপরান (র.) এর মাজার জিয়ারতের মধ্য দিয়ে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আনুষ্ঠানিক প্রচারণা শুরু করেছে বিএনপির নেতৃত্বাধীন জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। বুধবার বিকেলে ড. কামাল হোসেনসহ ঐক্যফ্রন্টের ৫ নেতা মাজার জিয়ারতের মাধ্যমে ধানের শীষের আনুষ্ঠানিক নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেন।

এ সময় জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের প্রধান নেতা ড. কামাল হোসেন বলেন, জনগণ দেশের মালিক। আর সুষ্ঠু নির্বাচন না হলে তাদের মালিকানা থাকে না। দেশে জনগণের মালিকানা না থাকলে স্বাধীনতাও থাকে না। স্বাধীনতার লক্ষ্যই সুষ্ঠু নির্বাচনের আয়োজন।

বুধবার সন্ধ্যা ৫টায় সিলেটের শাহজালাল (রহ.) মাজার প্রাঙ্গণে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।

ড. কামাল হোসেন বলেন, প্রতিদিন আমাদের নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার করা হচ্ছে। এটি সুষ্ঠু নির্বাচনের আলামত নয়। তবে আমরা শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত মাঠে থাকবো। সুষ্ঠু নির্বাচন আদায় করে নিতে হবে।

জনগণের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ৩০ তারিখ সকালে আপনারা ভোট দিবেন। ভোটকেন্দ্র পাহাড়া দিবেন। দুই নম্বরি করতে দিবেন না। নির্বাচনে লড়ে যাবো আমরা।

ড. কামাল বলেন, শাহজালাল (র.) এর দোয়া নিয়ে সিলেট থেকে আনুষ্ঠানিক নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করলাম।

তিনি বলেন, নির্বাচনে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ডের ক্ষেত্রে অনেক ঘাটতি রয়েছে। তবুও আমরা নির্বাচনে আছি এবং থাকবো।

নেতাকর্মীদের মাঠে সক্রিয় থাকার পরামর্শ দিয়ে তিনি বলেন, পুলিশ ও প্রশাসনের দায়িত্ব হলো জনগণের অধিকার রক্ষা করা। সরকারের ‘অসৎ’ উদ্দেশ্য সমর্থন করা তাদের দায়িত্ব নয়। তিনি বলেন, ১৮ কোটি মানুষের ওপর রহমত নাজিল হওয়ার জন্য দোয়া করেছি। ভোটার যেন স্বাধীন ও নিরপেক্ষভাবে ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারে।

তিনি বলেন, ভোটের মাধ্যমে নির্বাচিত প্রতিনিধিরা রাষ্ট্রকে তাদের অধিকারে নেবেন।

আরো পড়ুনঃ ফ্রান্সে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ৩

ড. কামাল বলেন, সারাদেশে ঐক্যফ্রন্টের পক্ষে ব্যাপক গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে। আমাদের ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে, যাতে আমরা সফল হতে পারি।

এ সময় তার সাথে ছিলেন ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম নেতা- আ স ম আব্দুর রব, বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী, নজরুল ইসলাম খান, ডা. জাফরুল্লাহ।

ইত্তেফাক/কেকে

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২০ মে, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন