ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৪ আশ্বিন ১৪২৬
৩০ °সে


‘বাঁচাও বাঁচাও’ চিত্কারেও বাঁচতে পারলেন না নারী

‘বাঁচাও বাঁচাও’ চিত্কারেও বাঁচতে পারলেন না নারী

ঢাকা কেন্দ্রীয় পুরাতন কারাগারের পুকুরে মৃতদেহ

ইত্তেফাক রিপোর্ট

ঢাকা কেন্দ্রীয় পুরাতন কারাগারের ভেতরে স্টাফ কোয়াটার পুকুর থেকে আজমেরি (২৬) নামে এক নারীর ভাসমান মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১১টার দিকে চকবাজার থানা পুলিশ মরদেহটি উদ্ধার করে। এ সময় একজোড়া স্যান্ডেল, একটি মোবাইল ফোনসেট ও একটি ভ্যানিটি ব্যাগ উদ্ধার করে। এটি হত্যা না আত্মহত্যা নিশ্চিত হতে স্থানীয় ২০ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে পুলিশ। লাশ উদ্ধারের ঘণ্টাখানেক আগেও বাঁচাও বাঁচাও বলে নারীর চিত্কার শোনা গেছে বলে দাবি করেছেন স্থানীয়রা।

পুলিশ জানায়, স্থানীয় সূত্রে খবর পেয়ে ওই নারীকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। পরে কর্তব্যরত চিকিত্সক তাকে রাত ৩টায় মৃত ঘোষণা করেন।

নিহতের বাবা বাহার উদ্দিন জানান, আমার মেয়ে ধার্মিক ছিল। বেশ কিছুদিন আগে মহাখালীর একটি প্রতিষ্ঠান থেকে সে ডিপ্লোমা করে। মানসিকভাবে কিছুটা ভারসাম্যহীন ছিল। তিনি বলেন, ঘটনার রাতে হঠাত্ বাসা থেকে বের হয়ে যায় সে। পরে পুলিশ খবর পেয়ে পুকুরে গিয়ে আমরা মেয়েকে ভাসমান অবস্থায় দেখি।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা চকবাজার থানার এএসআই জাহিদুল ইসলাম বলেন, ওই নারীর মোবাইল ফোনসেটটি প্যাটার্ন লক করা। কয়েকটি কমন প্যাটার্ন চেষ্টা করেও সেটি খোলা যায়নি। সেটি খোলা গেলে প্রাথমিকভাবে কিছু বলা যেত। এ ছাড়া, রাতে মোবাইলে কোনো কলও আসেনি। তিনি আরো বলেন, পুকুরের আশপাশে অন্ধকার ও ঝোপঝাড় ছিল। আমরা এখন পর্যন্ত কোনো ক্লু পাইনি। পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, মৃত আজমিরী ১১২/৩ আবুল হাসনাত রোড, বংশাল এলাকায় পরিবারের সঙ্গে থাকতেন। এক ভাই ও ছয় বোনের মধ্যে তিনি ছিলেন পঞ্চম।

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন