ঢাকা সোমবার, ৩০ মার্চ ২০২০, ১৬ চৈত্র ১৪২৬
৩৫ °সে

সখী ভালোবাসা কারে কয়

সখী ভালোবাসা কারে কয়

বিশ্বজুড়ে প্রতি বছর ১৪ ফেব্রুয়ারি ভালোবাসা দিবস হিসেবে পালন করা হয়। লাল শাড়ি অথবা পাঞ্জাবি, হাতে এক গোছা ফুল নয়তো পছন্দের উপহার নিয়ে শুরু হয় ভালোবাসা দিবস। তরুণ-তরুণী, মধ্যবয়সি এমনকি বৃদ্ধ লোকদের কাছেও দিন দিন গুরুত্ব বেড়ে চলেছে বিশেষ এই দিবসের। প্রিয়জনকে ভালোবাসার জন্য কোনো নির্দিষ্ট দিনের প্রয়োজন হয় না, মানতে ইচ্ছে হয় না কোনো নিয়ম। তারপরও ভালোবাসা দিবসে আয়োজনের কোনো কমতি থাকে না। এই দিনকে ঘিরে একেক জনের ভাবনা একেক রকম। কারও কাছে বিশেষ দিন, আবার কারও কাছে খানিকটা বাড়াবাড়ি। শোবিজ তারকাদের কাছে বিশেষ এই দিবসের গুরুত্ব কতটুকু সেটা নিয়েই লিখেছেন ইমরুল নূর

তানজিন তিশা

অভিনেত্রী

ভালোবাসা শুধু বিশেষ একটি দিনের জন্য নয়। মানুষের প্রতি মানুষের ভালোবাসা থাকবে সবসময়, সবখানে। ভালোবাসা দিবস মানেই যে প্রেমিকার প্রতি প্রেমিকের ভালোবাসা—এমনটি আমি মানতে নারাজ। যেমন আমার সবচেয়ে ভালো বন্ধু আমার মা। আমার বড় ভাইও আমার অনেক ভালো বন্ধু। এই দুজন মানুষ ছাড়া একটি মুহূর্তও চলতে পারি না। যে কোনো গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত মায়ের সঙ্গে আলোচনা করেই নিয়ে থাকি। তাই আমার যত ভালোবাসা সব আমার মাকে ঘিরেই। আমি মনে করি, পরিবারের ঊর্ধ্বে কিছু নয়।

মাসুমা রহমান নাবিলা

অভিনেত্রী

ভালোবাসা মানে শান্তি আর সাহস। আমার কাছে প্রতিটা দিনই ভালোবাসা দিবস। সবাই যেন প্রতিদিন বাঁচতে শিখি, ভালোবাসতে শিখি। আমাদের ভালোবাসার এতদূর আসার পেছনে কারণ হচ্ছে আমরা দুজনেই বেশ শান্তিপ্রিয় ও নির্ভেজাল মানুষ। আর এই দিনটার বিশেষত্ব হচ্ছে, ভালোবাসা মানুষকে ভালো মানুষ করে তুলে। আমাদের সবাইকে মানুষ হয়ে উঠাটা খুব জরুরি। এবার ভালোবাসা দিবস নিয়ে প্রতিবারের মতো একই পরিকল্পনা। আর সেটি হচ্ছে, স্বামীকে নিয়ে ডিনারে যাওয়া।

সিয়াম আহমেদ

চিত্রনায়ক

ভালোবাসাকে সংজ্ঞায়িত করা মানে তাকে খাঁচায় আটকে রাখা। ভালোবাসাকে খোলা আকাশে উড়িয়ে দিতে হয়, যেন সে অনেকটা জায়গা নিয়ে নিজেকে মেলে ধরতে পারে। আমার কাছে ভালোবাসা হচ্ছে মুক্ত পাখি, তাকে আটকিয়ে রাখা যায় না। কাজ নিয়ে ব্যস্ত থাকতে হয় বলে সবসময় ভালোবাসা দিবস পালন করতে পারি না। নিজের প্রিয় মানুষটাকেই এই বিশেষ দিনে সময় দিতে পারি না। মানুষকে ভালোবাসার গল্প বলতে বলতে নিজের গল্পটাই আর বলা হয় না।

ইমরান

সংগীতশিল্পী

ভালোবাসা এক অদ্ভুত শক্তি, যার কারণে পুরো পৃথিবী টিকে আছে। সেটা হতে পারে মা—বাবার প্রতি সন্তানের ভালোবাসা, প্রেমিকের প্রতি প্রেমিকার ভালোবাসা, বন্ধুর প্রতি ভালোবাসা, সৃষ্টিকর্তার প্রতি ভালোবাসা প্রভৃতি। আমি মনে করি, এই ভালোবাসা টিকিয়ে রাখতে হলে সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন বিশ্বাস।

ঈশিকা খান

অভিনেত্রী

আমার কাছে প্রতিটা দিনই ভালোবাসা দিবস। তবে এই একটা বিশেষ দিনকে একটা উপলক্ষ্য হিসেবে নেই স্বামী আর মাকে বিশেষ কিছু গিফট দেওয়ার জন্য। এবারের প্ল্যান বলতে, তাদেরকে গিফট করব। তবে মজার বিষয় হলো, আমার স্বামীর জন্য দুটি গিফট কিনেছি, তার একটা ভুলে লন্ডনে রেখে এসেছি আর একটা সাথে করে দেশে নিয়ে এসেছি! তাই নতুন একটা গিফট কিনে পাঠিয়ে দেব তার কাছে। আর এমনিতে অনেকদিন পর দেশে এসেছি, তাই পরিবারের সাথেই দিবসটি পালন করব।

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
icmab
facebook-recent-activity
prayer-time
৩০ মার্চ, ২০২০
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন