ঢাকা মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
২৩ °সে


সুফিরা হলেন রসুলুল্লাহ (স) -এর আদর্শের রোল মডেল

সুফিরা হলেন রসুলুল্লাহ (স)  -এর আদর্শের রোল মডেল

গত ১৮ অক্টোবর শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টায় আলিগড় ওল্ড বয়েজ অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ-এর উদ্যোগে অ্যাসোসিয়েশনের ক্যাপ্টেন মনসুর আলী ভবনে ‘স্যার সৈয়দ মেমোরিয়াল লেকচার-২০১৯’ এবং ‘স্যার সৈয়দ ডে (দিবস)’ উদ্যাপিত হয়। অনুষ্ঠানে ‘উপমহাদেশে ইসলাম প্রচারে সুফিদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা’ বিষয়ে তথ্য-উপাত্তের ভিত্তিতে বক্তব্য উপস্থাপন করেন ভারতের আলিগড় মুসলিম বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের প্রাক্তন অধ্যাপক, বিশিষ্ট ইতিহাস গবেষক প্রফেসর ড. সৈয়দ লিয়াকত হোসেন মুঈনী। তিনি বলেন, ‘সুফিরা হলেন রসুলুল্লাহর (স) আদর্শের রোল মডেল। একজন সুফির প্রধান উদ্দেশ্য হলো—জিকির-আজকার বা ধ্যানের মাধ্যমে আল্লাহ তায়ালার নৈকট্য হাসিল করা এবং সর্বোত্তম উপায়ে তার সৃষ্টিজগতের সেবা করা। কেননা সৃষ্টিজগতের সেবা করার মাধ্যমেই সৃষ্টিকর্তার সন্তুষ্টি অর্জন করা যায়। এজন্য বলা হয়, খিদমতে খালক খিদমতে খুদা হায়।’ প্রসঙ্গক্রমে তিনি আলিগড় আন্দোলনের প্রবাদপুরুষ স্যার সৈয়দ আহমদ খানের আধ্যাত্মিক দর্শনের দিকটিও তার বক্তব্যে তুলে করেন।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. কাজী শহিদুল্লাহ তার বক্তব্যে ভারতীয় মুসলমানদের আধুনিক শিক্ষায় স্যার সৈয়দ আহমদ খানের অগ্রণী ভূমিকার কথা গভীর শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করেন। মূলত সুফিগণের উদার মানবিক ও সৌহার্দ্যপূর্ণ আচরণের মাধ্যমে উপমহাদেশে যে ইসলাম প্রচার হয়েছে, সে বিষয়টি তিনিও অত্যন্ত গুরুত্ব সহকারে সকলের সামনে সুন্দরভাবে উপস্থাপন করেন।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন অ্যাসোসিয়েশনের বর্তমান প্রেসিডেন্ট প্রফেসর ড. শাহ্ কাওসার মুস্তাফা আবুলউলায়ী। অনুষ্ঠান উপস্থাপন করেন অ্যাসোসিয়েশনের জেনারেল সেক্রেটারি সৈয়দ আবেদ হাসান। সভায় অনেক গণ্যমান্য ব্যক্তি উপস্থিত ছিলেন এবং আলিগড় মুসলিম বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব সংগীতের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
১৯ নভেম্বর, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন