ঢাকা মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২ আশ্বিন ১৪২৬
২৮ °সে


টেকনাফে ভারীবর্ষণে পাহাড় ধসে নিহত ২

বসতবাড়ি ও মত্স্য ঘেরের ব্যাপক ক্ষতি
টেকনাফে ভারীবর্ষণে পাহাড় ধসে নিহত ২
পাহাড় ধ্বসে মেরিন ড্রাইভ সড়কের হিমছড়ি এলাকায় সড়কযোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় -ইত্তেফাক

কক্সবাজারের টেকনাফে ভারী বর্ষণে ঘর চাপা পড়ে দুই শিশু নিহত এবং ১০ জন আহত হয়েছে। এতে বসতঘর ও মত্স্যঘেরের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। গত মঙ্গলবার রাতে উপজেলার পৌর এলাকার পুরান পল্লানপাড়ায় পৃথক পাহাড়ধসে বসতঘর চাপা পড়ে মো. আলমের মেয়ে আলিফা (৫), রবিউল আলমের ছেলে মেহেদী হাসান (১০), জাফর আলমের মেয়ে শারমিন (৭), আব্দুস সালামের মেয়ে আলিমা (১৭)সহ ১২ জন আহত হয়। পরে স্থানীয় লোকজন, সিপিপি ভলান্টিয়ার, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের লোকজন গিয়ে আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে চিকিত্সাধীন অবস্থায় আলিফা ও মেহেদী মারা যায়। এছাড়া গুরুতর আহত শারমিন ও আলিমাকে উন্নত চিকিত্সার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে রেফার করা হয়। এদিকে টানা বর্ষণে উপজেলার হোয়াইক্যং, হ্নীলা, টেকনাফ পৌরসভা, সদর, সাবরাং ও বাহারছড়া ইউনিয়নের বিভিন্ন পাহাড়ি এলাকায় বিচ্ছিন্নভাবে শতাধিক বসতবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

এ ব্যাপারে টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. রবিউল হাসান জানান, অতিবৃষ্টিতে পাহাড়ধসে প্রাণহানির ঘটনা মাথায় রেখে সতর্কতামূলক প্রচারণা চালানো হয়েছিল। এরই মধ্যে ভারী বর্ষণে ঘর চাপা পড়ে ১০-১২ জন আহত হয়। আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়। এদের মধ্যে চিকিত্সাধীন অবস্থায় শিশু মেহেদী হাসান ও আলিফা মারা যায়।

ঝুঁকিপূর্ণ বসবাসকারীরা নিরাপদ আশ্রয়ে :টেকনাফে টানা ভারী বর্ষণ ও পাহাড়ধসে হতাহতের পর পাহাড়ের পাদদেশে ঝুঁকিপূর্ণ বসবাসকারীদের নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। দুর্যোগ অবস্থার কিছুটা উন্নতি হলেও থেমে থেমে বৃষ্টি হওয়ায় জনজীবন ব্যাহত হচ্ছে। বুধবার সকালে টেকনাফ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল আলম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আবুল মনসুরের নেতৃত্বে একটি দল উপজেলার মাইমুনা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে আশ্রিত লোকজনের খোঁজ-খবর নেয়। এ ব্যাপারে টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী অফিসার জানান, ‘ঐ ঘটনার পরপরই আমরা পাহাড়ে অভিযান চালিয়ে ঝুঁকিপূর্ণ বসবাসকারীদের নিরাপদে সরিয়ে এনে আশ্রয় দিয়েছি। তাদের নিয়মিত দেখাশোনা চলছে।’ বৃষ্টিপাত কমলে জনজীবনে স্বাভাবিকতা ফিরে আসবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন