পুঁজিবাজারে অপরাধী যত বড়ো শক্তিশালী হোক বিচার হবেই :অর্থমন্ত্রী

প্রকাশ : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  ইত্তেফাক রিপোর্ট

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, সকলের সহযোগিতা নিয়ে আমাদের অর্থনীতিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে। পুঁজিবাজার অর্থনীতির একটি অন্যতম মৌলিক এলাকা। প্রধানমন্ত্রীও সব সময় পুঁজিবাজার উন্নয়নে কথা বলেন। মধ্য, উচ্চ থেকে সাধারণ প্রায় সব শ্রেণির মানুষই পুঁজিবাজারে জড়িত। এই বাজারে আরো কিছু কাজ করতে হবে। ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা করে পুঁজিবাজারে জনগণের আস্থা ফিরিয়ে আনা হবে।

গতকাল সোমবার শেরেবাংলা নগরে এনইসি সম্মেলন কক্ষে পুঁজিবাজার উন্নয়নের লক্ষ্যে বাজার সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এ অভিমত ব্যক্ত করেন।

তিনি বলেন, ‘অন্যায়ের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি আমাদের। এই বাজারে আমরা শতভাগ আস্থা অর্জন করতে চাই। এখন থেকে আর কেউ অপবাদ দিতে পারবেন না যে, আমরা ন্যায় বিচার করি না অথবা আমরা কারোর প্রতি দুর্বল। পুঁজিবাজারে যিনি অপরাধ করবেন, তিনি যেই হোন না কেন! যত বড়ো শক্তিশালী হোন না কেন আইন অনুযায়ী তার বিচার করা হবে। ভালো ভালো সরকারি কোম্পানিগুলোকে পুঁজিবাজারে নিয়ে আসা হবে। পুঁজিবাজারের মূল্য যাতে যথাযথ হয় সেই কাজও করা হবে। এ লক্ষ্যে বিশেষ কমিটি গঠন করার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে, তারা ঘুরে ঘুরে এসব দেখবে। যারা পুঁজিবাজারে দাম বাড়িয়ে অস্থিতিশীল পরিবেশ সৃষ্টি করবে তারা ছাড় পাবে না।’

অর্থমন্ত্রী বলেন, সবাই ঐকমত্যে পৌঁছেছি, পুঁজিবাজার উন্নয়নে সবাইকে কাজ করতে হবে। সরকারের সকল সংস্থাও একমত পোষণ করেছে যে, যে কোনো মূল্যে পুঁজিবাজার উন্নয়ন করতেই হবে। আমাদের অর্থনীতি যতটা গতিশীল, আমাদের পুঁজিবাজারকে ততটা গতিশীল হিসেবে দেখতে চাই। এই বাজারে যে অবিশ্বাস আছে কয়েকটি কারণে, এগুলো দূর করতে হবে।

বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সিনিয়র সচিব মো. আসাদুল ইসলাম এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের চেয়ারম্যান খায়রুল হোসেনসহ বাজারসংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তর ও প্রতিষ্ঠানের শীর্ষ নির্বাহীরা।