ঢাকা বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০১৯, ১১ বৈশাখ ১৪২৬
২৭ °সে

কাল নির্বাচন

গাজীপুরে তিন উপজেলায় নৌকার প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ

শ্রীপুর, কালিয়াকৈর, ও কাপাসিয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ১০ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এর মধ্যে শ্রীপুর তিনজন, কালিয়াকৈরে দুইজন এবং কাপাসিয়ায় ৫ জন
গাজীপুরে তিন উপজেলায় নৌকার  প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ

আগামীকাল রবিবার তৃতীয় ধাপে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে গাজীপুরের ৫টি উপজেলার মধ্যে ৪ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। কালীগঞ্জে চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান পদের প্রার্থী বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে শুধু মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে। আর গাজীপুর সদর উপজেলা নির্বাচনের তফশিল এখনো ঘোষণা করা হয়নি। ইতোমধ্যে নির্বাচনের যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে।

নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, রবিবার শ্রীপুর, কালিয়াকৈর, ও কাপাসিয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ১০ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এর মধ্যে শ্রীপুর তিনজন, কালিয়াকৈরে দুইজন এবং কাপাসিয়ায় ৫ জন।

জানা গেছে, শ্রীপুরে নৌকা প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করছেন বর্তমান উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য মোঃ আঃ জলিল। তার প্রতিদ্বন্দ্বী দলের বিদ্রোহী প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ্যাডভোকেট শামসুল আলম প্রধান। তিনি লড়ছেন মোটর সাইকেল প্রতীক নিয়ে। অপর প্রার্থী আম প্রতীক নিয়ে লড়ছেন ন্যাশনাল পিপলস পার্টির হাবিবুর বাশার।

শ্রীপুর আওয়ামী লীগের ঘাঁটি। কিন্তু আওয়ামী লীগ থেকে দুই প্রার্থী প্রার্থী হওয়ায় বিপাকে পড়েছেন নেতা-কর্মী ও সাধারণ ভোটাররাও। আ. জলিল সাবেক এমপি রহমত আলীর অনুসারী। আর শামসুল আলম প্রধান বর্তমান এমপি ইকবাল হোসেন সবুজের অনুসারী। দুই প্রার্থীই এলাকায় সমান জনপ্রিয়। এখানে নৌকার সাথে মোটরসাইকেলে তীব্র লড়াইয়ের আভাস পাওয়া গেছে। এক্ষেত্রে দলীয় প্রতীক নৌকা পাওয়ার কারণে জলিলের পাল্লাই ভারি বলে ভোটারদের অভিমত।

এ উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৬ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এখানে মোট ভোটার ৬ লাখ ৪৬ হাজার ৩৭১ জন।

কালিয়াকৈর উপজেলাতেও বর্তমান চেয়ারম্যান নৌকা প্রতীকের মোঃ রেজাউল করিম রাসেলের প্রতিদ্বন্দ্বি উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোঃ কামাল উদ্দিন সিকদার। তিনি লড়ছেন আনারস প্রতীক নিয়ে। এখানে কঠিন চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছেন রাসেল। দলীয় অধিকাংশ নেতা-কর্মী কামাল শিকদারের পক্ষে অবস্থান নেওয়ায় অনেকটাই বিপাকে পড়েছেন রাসেল। তাছাড়া কামাল শিকদার স্থানীয় সংসদ সদস্য ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রীর আস্থাভাজন।

এ উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ৩২ হাজার ৪৯৭ জন। এখানে ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

কাপাসিয়ায় চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী ৫ জন হলেও দলীয় প্রার্থী জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট আমানত হোসেন খান ও বিদ্রোহী প্রার্থী জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ আনিছুর রহমান আরিফের মধ্যে লড়াইয়ের সম্ভাবনা রয়েছে। আমানত হোসেন নৌকা এবং আরিফ লড়ছেন আনারস প্রতীক নিয়ে। এছাড়াও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মেঃ রুহুল আমীন মোটরসাইকেল, লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে জাতীয় পার্টির এনামুল কবীর ও মিনার প্রতীক নিয়ে ইসলামী ঐক্যজোটের আছমা সুলতানা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

এখানে আমানত হোসেন খান দলীয় প্রতীক এবং ব্যক্তি ইমেজের কারণে অনেকটা সুবিধাজনক অবস্থানে রয়েছেন বলে ধারণা করছেন স্থানীয়রা। এ উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এখানে মোট ভোটার ২ লাখ ৬৭ হাজার ৩৯৪ জন।

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২৪ এপ্রিল, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন