ঢাকা সোমবার, ০১ জুন ২০২০, ১৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
২৭ °সে

দেশে দেশে যুগে যুগে কত যুদ্ধ, কত না সংঘাত

দেশে দেশে যুগে যুগে কত যুদ্ধ, কত না সংঘাত

ব্যবসায় সংগঠন ও ব্যবস্থাপনা

পপেল চন্দ্র সাহা,সহকারী অধ্যাপক

আবদুল কাদির মোল্লা সিটি কলেজ,নরসিংদী

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার এলাকায় মেঘনা সমবায় সমিতি ও আশার আলো নামে দুটি সমবায় সমিতি আছে। মেঘনা সমবায় সমিতির সদস্যরা তাদের তৈরিকৃত খেলনা সামগ্রী একত্র করে ন্যায্যমূল্যে বিক্রি করে। এতে এলাকার মানুষের উপার্জন বেড়েছে। অপরদিকে আশার আলো সমবায় সমিতির সদস্যরা তাদের প্রয়োজনীয় ভোগ্যপণ্য সরাসরি কোম্পানি থেকে কিনে নিজেরা ভাগ করে নেয়।

ক. সংরক্ষিত তহবিল কী?

খ. ‘একতাই বল’ সমবায়ের মূলমন্ত্র ব্যাখ্যা কর।

গ. উদ্দীপকে বর্ণিত আশার আলো কোন ধরনের সমবায় সমিতি? ব্যাখ্যা কর।

ঘ. আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে মেঘনা সমবায় সমিতির ভূমিকা উদ্দীপকের আলোকে বিশ্লেষণ কর।

উত্তর-‘ক’: সমবায়ের আর্থিক সামর্থ্য কথা বিনিয়োগ বৃদ্ধির জন্য অর্জিত মুনাফার পুরো অংশ শেয়ারহোল্ডারগণের মধ্যে বিতরণ না করে অংশবিশেষ যে তহবিলে স্থানান্তর করা হয় তাকে সমবায়ের সংরক্ষিত তহবিল বলে।

উত্তর-‘খ’: ঐক্যবদ্ধ থাকার উপরই সমবায়ীদের সফলতা নির্ভর করে বিধায় ‘একতাই বল’ সমবায়ের প্রধান মূলনীতি।

সকলে মিলে একভাবে, একমনে ও একত্রে চলার দৃঢ় অভিব্যক্তি, প্রবণতা ও অবস্থাকে একতা বলে। ঐক্যবদ্ধভাবে এই চলার ফলে যে শক্তির সৃষ্টি হয় তাই একতাই বল’ (Unity is strength) নামে অভিহিত। প্রত্যেক সমবায়ীকে বোঝতে হয় যে ঐক্যই তাদের শক্তি। তাই এটি বিনষ্ট হয় এমন কোনো কাজ থেকে সদস্যদের বিরত থাকা আবশ্যক।

উত্তর-‘গ’: উদ্দীপকে বর্ণিত আশার আলো ভোক্তা সমবায় সমিতি।

ভোক্তাগণ ক্রয় সুবিধা প্রাপ্তির লক্ষ্যে নিজেদের প্রচেষ্টা ও সহযোগিতায় কোনো সমবায় সমিতি গঠনপূর্বক সমবায় বিপনি স্থাপন ও পরিচালনা করলে তাকে ভোক্তা সমবায় সমিতি বলে। এতে একদিকে যেমনি ন্যায্যমূল্যে উন্নতমানের সামগ্রী সংগ্রহ করা যায় অন্যদিকে এ বিপনি থেকে অর্জিত মুনাফাও তারা ভোগ করতে পারে।

উদ্দীপকে দেখা যায়। নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার এলাকায় আশার আলো সমবায় সমিতির সদস্যরা তাদের প্রয়োজনীয় ভোগ্যপণ্য সরাসরি কোম্পানি থেকে কিনে নিজেরা ভাগ করে নেয়। অর্থাত্ ভোক্তাগণ ক্রয় সুবিধা প্রাপ্তির লক্ষ্যে ও ন্যায্য মূল্যে উন্নত মানের সামগ্রী সংগ্রহ করার জন্য এ সমিতি গঠন করেছে। তাই নি:সন্দেহে বলা যায় উদ্দীপকে বর্ণিত আশার আলো ভোক্তা সমবায় সমিতি।

উত্তর-‘ঘ’ :মেঘনা সমবায় সমিতিটি হলো বিক্রয় সমবায় সমিতি। আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে মেঘনা সমবায় সমিতির ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

কোনো এলাকায় একই ধরনের ক্ষুদ্র উত্পাদনকারীগণ বিক্রয়ের ক্ষেত্রে অধিক সুবিধা আদায়ের লক্ষ্যে সমবায় সমিতি স্থাপন করলে তাকে বিক্রয় সমবায় সমিতি বলে। এর ফলে মধ্যস্থ ব্যবসায়ীদের ওপর হতে যেমনি নির্ভরতা কমানো যায় তেমনিভাবে সুবিধাজনক মূল্যে পণ্য বিক্রয়ের সুযোগ সৃষ্টি হয়।

উদ্দীপকে দেখা যায় নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার এলাকায় মেঘনা সমবায় সমিতি ও আশার আলো সমবায় সমিতি গড়ে উঠেছে। মেঘনা সমবায় সমিতির সদস্যরা তাদের তৈরিকৃত খেলনা সামগ্রী বেড়েছে। অর্থাত্ তাদের মাথাপিছু আয় যেমন বেড়েছে, তেমনি জীবনযাত্রার মান ও উন্নত হয়েছে।

মেঘনা সমবায় সমিতির সদস্যরা খেলনা বিক্রয়ের মাধ্যমে নিজেদের ভাগ্যের পরিবর্তন করতে পেরেছে। তাই বলা যায় আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন মেঘনা সমবায় সমিতির ভূমিকা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
০১ জুন, ২০২০
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন