ঢাকা সোমবার, ২০ জানুয়ারি ২০২০, ৭ মাঘ ১৪২৭
১৯ °সে

আরো ভালো করার প্রতিজ্ঞা তাসকিনের

আরো ভালো করার প্রতিজ্ঞা তাসকিনের

আবার তাসকিনের সামনে একটা বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল)

এই বিপিএলের গত আসরেই দেখেছিলেন উত্থান ও পতনের দুই বিপরীত পিঠ। ইনজুরি কাটিয়ে ফেরার পর গত বিপিএলে ছিলেন দুরন্ত ফরমে। জাতীয় দল, ওয়ানডে বিশ্বকাপ তখন দেখতে পাচ্ছিলেন। কিন্তু বিপিএলেরই শেষদিকে একটা ম্যাচে ইনজুরিতে পড়ে ছিটকে গেলেন খেলা থেকে। অনেক নাটকীয়তার পর বিশ্বকাপও মিস হলো। সেই থেকে তাসকিন আহমেদের ফেরার লড়াই চলছেই।

এর মধ্যে জাতীয় দলের স্কোয়াডে ডাক পেয়েছেন। কিন্তু মাঠে নামা হয়নি। এখন সামনে আরেকটা বিপিএল। এই সময়ে আবারও পুরো ফিট হয়ে উঠেছেন। স্বপ্ন তাই আরেকটা বিপিএল দিয়েই নিজেকে পুরোদস্তুর ফিরে পাওয়া। সেই সঙ্গে এবারের ফেরাটাকে ধারাবাহিক করার স্বপ্ন তার। তাসকিন গতকাল বলছিলেন, এবার বিপিএলে তিনি আরো ভালো কিছু করার চেষ্টায় আছেন।

নিজের লক্ষ্যের কথা বলতে গিয়ে বলছিলেন, তার এখন মূল লক্ষ্য ফিট থেকে সুযোগ পেলেই ভালো পারফরম করে যাওয়া, ‘আসলে আমার এখন লক্ষ্যই হলো যেখানেই সুযোগ হোক ভালো খেলা। চেষ্টা করবো সুস্থ থাকার, চেষ্টা করছিও যেভাবে ফিট থাকা যায়। লক্ষ্যই এখন একটা—সামনের বিপিএল ভালো খেলা। নিজের সর্বোচ্চটা দিয়েই চেষ্টা করবো ভালো খেলার। ভালো পারফরম্যান্স করে জাতীয় দলে খেলার সুযোগ পাই এটাই আমার লক্ষ্য।’

তাসকিন ঘরোয়া ক্রিকেট বা কিছু প্রস্তুতি ম্যাচে প্রমাণ করেছেন লম্বা এই ইনজুরির সঙ্গে লড়াই করতে গিয়ে গতি হারাননি তিনি। তবে বিপিএলের আগে এই পেসার বলছিলেন, গতির চেয়েও এই টুর্নামেন্টে বেশি দরকার বৈচিত্র্য, ‘আসলে গতি তো আছেই, সেই সঙ্গে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে সব বলই জোরে করা যাবে না ভ্যারিয়েশনটা গুরুত্বপূর্ণ। চেষ্টা করব পরিস্থিতি বুঝে দলের চাহিদা পূরণ করার। এটাই লক্ষ্য থাকবে।’

গত আসরের অন্যতম সেরা বোলার ছিলেন। এবার তাই তার দিকে চেয়ে থাকবে রংপুর। সেই প্রত্যাশা পূরণের কথা বলতে গিয়ে বাংলাদেশি এই ফাস্ট বোলার বলছিলেন, ‘আশা তো থাকবেই আগের থেকে ভালো করার। কিন্তু দিনশেষে এটা একটা খেলা। ভালো খারাপ হবেই। আমি চেষ্টা করব সর্বোচ্চটা দিতে প্রত্যেকটা ম্যাচে। যাতে আমার কারণে রংপুর রেঞ্জার্স ম্যাচ জিততে পারে।’

তাসকিন মনে করেন, এই সময়টা তাকে আরো পরিণত করেছে। এখন তিনি ইনজুরির ব্যবস্থাপনাটা আগের চেয়ে অনেক ভালো বোঝেন বলেই বলছিলেন, ‘ইনজুরি ম্যানেজমেন্ট আগের থেকে বেটার। আমি এখন ভালো বুঝতে পারি শরীরের ধরন বা কীভাবে কি করা যায়। তাও ইনজুরি আসলে জীবনেরই অংশ, পেসারদেরই বেশি হয়। তো চাইব যে, নিজের ডিসিপ্লিন বা প্রস্তুতিটা আরো বেটার করার জন্য যাতে সুস্থ থাকি।’

সবমিলিয়ে তাসকিন এখন খুব রোমাঞ্চিত। তিনি আরেকটা বিপিএলকে সামনে রেখে জ্বলে উঠতে প্রস্তুত। বিশেষ করে এই টুর্নামেন্টটাকে নিজের পছন্দের টুর্নামেন্ট বলে বলছিলেন, ‘আসলে বিপিএল আমি খুব উপভোগ করি। আমার খুব ভালো লাগে বাংলাদেশের সেরা টুর্নামেন্ট। আর অনেক তারকা খেলোয়াড় থাকে, ড্রেসিং রুম শেয়ার করা হয় তো একটা আমেজ থাকে। আমার মধ্যে একটা আনন্দ কাজ করে বিপিএলে, উপভোগ করি।’

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
icmab
facebook-recent-activity
prayer-time
২০ জানুয়ারি, ২০২০
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন