ঢাকা মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ৬ কার্তিক ১৪২৬
৩১ °সে


সাফল্য ধরে রাখতে চায় ভারত

সাফল্য ধরে রাখতে চায় ভারত

স্পোর্টস ডেস্ক

বিশাখাপত্তনমে সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ২০৩ রানের বিশাল জয়ের পর ফুরফুরে মেজাজেই আছে বিরাট কোহলির দল। আর এই মেজাজ ধরে রেখেই আজ পুনেতে দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে মাঠে নামছে স্বাগতিকরা। আর বলাই বাহুল্য, প্রতিপক্ষকে হোয়াইটওয়াশ করা ছাড়া দ্বিতীয় আর কিছুই মাথায় নেই বিরাটদের।

ঘরের মাঠে খেলা বলেই ভারত এবারও এগিয়ে থেকেই মাঠে নামবে। যদিও, বিরাট কোহলি মন্তব্য করলেন দেশের মাটিতেও টেস্ট জয় সব সময় সম্ভব নয়। ম্যাচের আগেরদিন গতকাল সংবাদ সম্মেলনে এসে তিনি আত্মবিশ্বাসের সাথেই কন্ডিশন বিষয়ক বিতর্কের মোকাবিলা করলেন।

বললেন, ‘এটা খুবই স্পষ্ট যে, আমাদের দলে থাকা ক্রিকেটারদের মান অনেক ভালো। পাশাপাশি আমরা ভালো করেই জানি, ঘরের মাঠে নিজেদের কন্ডিশনে কিভাবে খেলতে হয়। কিভাবে টেস্ট জিততে হয়, জানি আমরা। তবে, কন্ডিশন যদি কঠিন হয়, তখন সেটা স্বাগতিক দলের জন্যও কঠিন। আমাদের একই চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হয়। এটা মোটেও সহজ কিছু নয়। দেশের উইকেটে যখন স্পিন ধরে, তখন আমাদের ব্যাটসম্যানরাও সমস্যায় ভোগে।’

বোঝাই যাচ্ছে, কন্ডিশনের ব্যাপারটা মাথায় না রেখে, নিজেদের সেরা খেলাটাই খেলতে মরিয়া ভারত। বিরাট কোহলির লক্ষ্য সাফল্য ধরে রাখা। তিনি বলেন, ‘দল হিসেবে আমরা সব সময় সমস্যার উত্তর খুঁজি, সমাধান বের করতে চাই। অজুহাত দিয়ে পার পেয়ে যাওয়ার চেষ্টা করি না। সাম্প্রতিক সময়ে আমাদের যা সাফল্য, তার মূল কারণ এটাই। এটাই আমাদের মধ্যে উন্নতি আনছে। আমরা কোনো কিছুকেই সহজ ভাবে নেই না। দেশ বা দেশের বাইরে—সব জায়গাতেই আমরা জয়ের লক্ষ্য নিয়ে মাঠে নামি। কন্ডিশন নিয়ে বেশি মাথা ঘামালে পুরোটা মনোযোগ দিয়ে খেলা সম্ভব নয়। তখন, সেটা ভালো পারফরম্যান্সের অন্তরায় হয়ে যায়।’

চলমান টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে ১৬০ পয়েন্ট নিয়ে সবার ওপরে আছে ভারত। আজ থেকে শুরু হতে যাওয়া টেস্টে জিতে গেলে পয়েন্ট আরো বেড়ে যাবে দলটির। যদিও, টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের পয়েন্ট বণ্টন ব্যবস্থায় আইসিসিকে অভিনব এক প্রস্তাব দিয়েছেন কোহলি। একই সাথে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ভাবনার প্রশংসাও করেন তিনি।

বললেন, ‘আমি অবশ্যই অ্যাওয়ে টেস্ট জয়ের ক্ষেত্রে দ্বিগুণ পয়েন্ট দেওয়ার প্রস্তাব দেব। আমি বলব, এই বিষয়টা ভেবে দেখা উচিত। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফলে খেলাটার গুরুত্ব আগের থেকে অনেক বেড়েছে।। আগে তিন ম্যাচের সিরিজে সকলে ড্রয়ের কথা ভাবত। দলগুলো এখন সিরিজ জয়ের দিকে নজর রেখে মাঠে নামে। এটা দারুণ একটা ব্যাপার। এর ফলে প্রতিযোগিতা বলেন কিংবা বলেন খেলার মান— দুটোই অনেক বেড়েছে।’

দ্বিতীয় টেস্টেও স্বভাবতই চোখ থাকবে রোহিত শর্মার ব্যাটের দিকে। ওপেনিং পজিশনে খেলতে নেমে বিশাখাপত্তনম টেস্টের দুই ইনিংসেই সেঞ্চুরি করেন। বিরাট কোহলি অবশ্য মনে করছেন, এখন বেশি আলোচনা না করে রোহিতকে উপভোগ করতে দেওয়াটাই বুদ্ধিমানের কাজ হবে। তিনি বলেন, ‘ও কী করতে পারবে, সেসব নিয়ে এত ভাবাটা বন্ধ করা দরকার। ওকে ওর মতো করে খেলতে দিন। ওয়ানডের মতোই টেস্ট ক্রিকেটটা উপভোগ করতে দিন। ও এখন দারুণ করছে। ওর অভিজ্ঞতা অনেক দিনের। এখন সেটাই কাজে লাগছে।’

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২২ অক্টোবর, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন