উইঘুর মুসলিমদের সমর্থনে ওজিলের মন্তব্যে চীনে ক্ষোভ 

উইঘুর মুসলিমদের সমর্থনে ওজিলের মন্তব্যে চীনে ক্ষোভ 
২০১৩ সাল থেকে আর্সেনালে খেলছেন মেসুত ওজিল। ছবি: গেটি ইমেজ।

চীনে উইঘুর মুসলিমদের সাথে হওয়া আচরণ সম্পর্কে জার্মান ফুটবলার মেসুত ওজিল যে টুইট করেছে সেটির সাথে তার ক্লাব আর্সেনালের সংশ্লিষ্টতা নেই বলে বিবৃতি প্রকাশ করেছে ক্লাব কর্তৃপক্ষ। শুক্রবার মেসুত ওজিলের করা টুইট সম্পর্কে দেয়া এক বিবৃতিতে আর্সেনাল বলেছে, 'সোশ্যাল মিডিয়ায় মেসুত ওজিলের করা মন্তব্য তার ব্যক্তিগত দৃষ্টিভঙ্গির প্রতিফলন করে, এর সাথে ক্লাবের মতাদর্শের কোনো সম্পর্ক নেই।'

'আর্সেনাল সবসময়ই একটি অরাজনৈতিক সংগঠন', বলা হয় ক্লাবের পক্ষ থেকে।

লন্ডনের ক্লাবটির এই বিবৃতি চীনের সামাজিক মাধ্যম ওয়েবসাইট ওয়েইবোতে প্রকাশিত হয়েছে।

ওজিল তার পোস্টে চীনের উইঘুর মুসলিমদের 'নির্যাতনের প্রতিরোধকারী যোদ্ধা' বলে প্রশংসা করেন এবং চীনের কর্তৃপক্ষ ও উইঘুরদের পক্ষ না নেয়া মুসলিমদের সমালোচনা করেন।

ওজিলের মন্তব্যের প্রেক্ষিতে করা আর্সেনালের পোস্টে হাজার হাজার ব্যবহারকারী সমর্থন প্রকাশ করেছে। অনেকেই ওজিলের বিরুদ্ধে আরো কঠোর পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানায় ক্লাব কর্তৃপক্ষের প্রতি।

অক্টোবরে যুক্তরাষ্ট্রের একটি বাস্কেটবল দলের একজন কর্মকর্তা চীন-যুক্তরাষ্ট্র সম্পর্কের অবনতি সম্পর্কে মন্তব্য করলে আর্থিক ক্ষতির শিকার হয় যুক্তরাষ্ট্র বাস্কেটবল অ্যাসোসিয়েশন।

সেসময় হংকংয়ের গণতন্ত্রপন্থী বিক্ষোভকারীদের সমর্থনে একটি টুইট করেছিলেন হিউস্টন রকেটসের ম্যানেজার ড্যারিল মোরে।

ঐ টুইটের পর চীনের প্রতিষ্ঠানগুলো বাস্কেটবলের স্পন্সরশিপ চুক্তি বাতিল করে দেয় এবং টেলিভিশনে খেলা দেখানোও বন্ধ করে দেয়। মানবাধিকার সংস্থাগুলোর মতে চীনে মুসলিম উইঘুর সম্প্রদায়ের প্রায় ১০ লাখ মানুষকে কোনো বিচার ছাড়াই কড়া নিরাপত্তায় বিশেষ ক্যাম্পে আটকে রাখা হয়েছে।

তবে চীনের দাবি, উইঘুর মুসলিমরা যেন ধর্মীয় জঙ্গিবাদে না জড়ায় সেলক্ষ্যে তাদের বিশেষ প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে প্রশিক্ষিত করা হচ্ছে। বিবিসি।

ইত্তেফাক/এসআর

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত