ঢাকা বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৬ ফাল্গুন ১৪২৬
৩০ °সে

কানেরিয়াকে নিয়ে আমার মন্তব্যের ভুল ব্যাখ্যা হয়েছে: শোয়েব

কানেরিয়াকে নিয়ে আমার মন্তব্যের ভুল ব্যাখ্যা হয়েছে: শোয়েব
দানিশ কানেরিয়া ও শোয়েব আক্তার। ছবি: সংগৃহীত।

‌'হিন্দু হওয়ায় পাকিস্তান দলে ব্রাত্য ছিলেন কানেরিয়া' এমন শিরোনামের খবর সারা বিশ্ব ক্রিকেটে আলোচনার কেন্দ্রে পরিণত হওয়ায় অবশেষে নিজ মন্তব্য নিয়ে আরো একবার মুখ খুললেন পাকিস্তানের প্রাক্তন তারকা পেসার শোয়েব আখতার। তিনি জানান, দানিশ কানেরিয়াকে নিয়ে করা তার মন্তব্যর ভুল ব্যাখ্যা প্রদান করেছে মিডিয়া।

'প্রাক্তন লেগস্পিনর দানিশকে পাকিস্তান দলে অনেকেই চাইতেন না তিনি হিন্দু বলে' এমন মন্তব্য প্রসঙ্গে শোয়েব আক্তার বলেন, ‌'আমার কথাকে ভুল বোঝা হয়েছে। কাউকে ধর্মের ভিত্তিতে আলাদা করে রাখার সংস্কৃতি কখনই পাকিস্তান দলে ছিল না।'

এদিকে শোয়েব আক্তারের করা পূর্বের বক্তব্য প্রসঙ্গে দানিশও জানান, তাঁকে কয়েকজন ক্রিকেটার পছন্দ না করলেও ধর্মান্তরিত হওয়ার ব্যাপারে কেউ চাপ দেয়নি।

এদিকে শনিবার প্রাক্তন পাক অধিনায়ক ইনজামাম-উল-হক বলেন, তাঁর অধিনায়কত্বে খেলার সময় তিনি দানেশের প্রতি এমন ব্যবহার প্রত্যক্ষ করেননি।

শোয়েব তাঁর ইউটিউব চ্যানেলে একটি ভিডিও পোস্ট করে তার লিংক টুইট করেন। সেখানে তিনি লেখেন, 'দেখছি আমার মন্তব্যকে ঘিরে সমস্যা তৈরি হয়েছে। এই মন্তব্যকে একেবারে ভুল বোঝা হয়েছে।' এ সময় তিনি ভিডিও দেখার অনুরোধ জানান সকলকে। ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, 'পাকিস্তান দলে ১-২ জন কানেরিয়াকে নিয়ে সাম্প্রদায়িক মন্তব্য করলেও দলের বাকি সদস্যরাও সেটা মেনে নেননি। অঙ্কুরেই বিনষ্ট করে দেওয়া হয় সেই বৈষম্যের বীজ।'

তিনি আরো বলেন, এটি কোন লিখিত নিয়ম নয়, কিন্তু প্রত্যেক খেলোয়াড় প্রত্যেকের প্রতি সম্মান প্রদর্শন করবে এমন নিয়ম ছিলো। কয়েকজন খেলোয়াড় এই নিয়ম ভঙ্গ করে, যার বিপরীতে তাদের রুখে দেয় টিমের অন্যান্যরা।

এদিকে শনিবার দানিশ কানেরিয়া অভিযোগ করেন, খেলা থেকে বরখাস্ত হওয়ার পর পিসিবি ও পাকিস্তান সরকার তাঁকে কোনও রকম সাহায্য করেনি। ৬১ টেস্ট খেলে ২৬১টি উইকেট পাওয়া দানিশকে ম্যাচ গড়াপেটার অভিযোগে নির্বাসিত করে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। এনডিটিভি।

ইত্তেফাক/আরএ

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
icmab
facebook-recent-activity
prayer-time
১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন