অলিম্পিক বাতিলের পক্ষে ৬০ শতাংশ জাপানি নাগরিক

অলিম্পিক বাতিলের পক্ষে ৬০ শতাংশ জাপানি নাগরিক
ছবি: সংগৃহীত

গত বছর মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে স্থগিত হয়ে যায় টোকিও অলিম্পিক-২০২০। পরে সেটিকে পিছিয়ে চলতি বছরের আগস্টে নিয়ে আসা হয়। কিন্তু এ বছরও ভাইরাসটির যে প্রভাব তাতে অলিম্পিক আয়োজন নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে। এমতাবস্থায় সাম্প্রতিক এক জরিপে দেখা গেছে, জাপানের ৬০ শতাংশ মানুষই অলিম্পিক আয়োজন না করার পক্ষে। আজ সোমবার (১০ মে) এ খবর প্রকাশ করেছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জাপানে করোনার সংক্রমণ রোধে চলমান জরুরি অবস্থা মে মাসের শেষ পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে। এমতাবস্থায় প্রশ্ন উঠেছে, এই পরিস্থিতির মধ্যেও অলিম্পিক আয়োজন করা কি উচিত হবে। তাছাড়া দেশটিতে ভ্যাকসিন প্রয়োগ কার্যক্রমও অনেকটা ধীর গতিতে হচ্ছে।

আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কর্মকর্তারা, টোকিওর পরিকল্পনাকারী এবং জাপানের প্রধানমন্ত্রী ইয়োশিহিদে সুগা নিজেও জোর দিয়ে বলেছেন, বিশ্বের বৃহত্তম গেমসটি নিরাপদ ও সুরক্ষিত পথে আয়োজন করা হবে। অর্থাৎ তারা এখনো অলিম্পিক আয়োজনের ব্যাপারে আশাবাদী। সেই লক্ষ্যে পরিকল্পনা অনুযায়ী আগেই বিদেশি দর্শক নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়।

তবে গত ৭-৯ মে স্থানীয় দৈনিক ইওমিউরি শিম্বুন একটি জরিপ চালায়। সেখানে ৫৯ শতাংশ মানুষই অলিম্পিক বাতিলের পক্ষে রায় দিয়েছেন। আর ৩৯ শতাংশ চায় আয়োজন হোক। অবশ্য এই জরিপে অলিম্পিক স্থগিতের কোনো অপশন রাখা হয়নি।

সাপ্তাহিক টিবিএস নিউজের পরিচালিত অপর এক জরিপে দেখা যায়, অলিম্পিক বাতিল বা স্থগিতের পক্ষে রায় দিয়েছেন ৬৫ শতাংশ অংশগ্রহণকারী। ইভেন্টটি পুরোপুরি বাতিল করতে ভোট দিয়েছে ৩৭ শতাংশ এবং ২৮ শতাংশ পিছিয়ে দেওয়ার পক্ষে। গেমস বাতিল করার জন্য ইতিমধ্যে একটি পিটিশনে স্বাক্ষর করেছেন ৩ লাখের বেশি মানুষ।

ইত্তেফাক/টিএ

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x