অলিম্পিকের ভার নিতে পারছেন না বাকি

অলিম্পিকের ভার নিতে পারছেন না বাকি
শ্যুটার আব্দুল্লাহ হেল বাকি। ছবি: সংগৃহীত

টোকিও অলিম্পিকে গিয়ে বাংলার শ্যুটার আব্দুল্লাহ হেল বাকি ভালো কিছু করে দেখাবেন। ওয়াইল্ডকার্ড নিয়ে অলিম্পিকে গিয়েছিলেন বাকি। তাকে নিয়ে অনেক আশা ছিল। কিন্তু সেই আশার গুড়ে বালি পড়েছে। টোকিও অলিম্পিকে নিজের স্কোরও করতে পারেননি গাজীপুরের এই শ্যুটার। ২০১৬ ব্রাজিলে অনুষ্ঠিত রিও অলিম্পিক গেমস শুটিংয়ের চেয়েও এবার টোকিও অলিম্পিকে খারাপ করেছেন বাকি। ১০ মিটার এয়ার রাইফেলের বাছাই পর্বে ৬১৯.৮ স্কোর করে ৪৭ জনের মধ্যে ৪১তম হয়ে বিদায় নেন তিনি। আজ দেশে ফিরে আসছেন বাকি।

রিও অলিম্পিকের পর উন্নতি নেই দেশসেরা রাইফেল শ্যুটার আবদুল্লাহ হেল বাকির। বরং রিও অলিম্পিকের চেয়ে আরো বাজে পারফরম্যান্স হয়েছে টোকিওতে। রবিবার টোকিওর আসাকা শুটিং রেঞ্জে আরও একবার হতাশ করলেন বাকি। অলিম্পিকের মতো আসরের চাপ যেন নিতেই পারছেন না তিনি। বাকি বলছেন, রেঞ্জে সবই ভালো দিক ছিল। কিন্তু সময়ের সঙ্গে সঙ্গে কি যেন হয়ে গেল। আবদুল্লাহ হেল বাকি প্রথম সিরিজের ১০ শুটে ১০২.৮ স্কোর করেন।

ছয় সিরিজের পরের পাঁচটিতে তিনি করেন যথাক্রমে ১০৩.৪, ১০২.৯, ১০৩.৮, ১০৩.৮ ও ১০৩.১ স্কোর। বাকির গড় স্কোর ১০.৩৩ নিজে শেষ করেন বাকি। ফলে মোট স্কোরটা দাঁড়ায় ৬১৯.৮। অথচ রিও অলিম্পিকে বাকির স্কোর ছিল ৬২১.২। অবস্থান ৫০ জনের মধ্যে ২৫তম ছিল। আগের পারফরম্যান্স ধরে রাখা তো দূরের কথা, ভালো খেলতেই পারেননি বাকি। অন্যদের মতো নিজের করা পারফরম্যান্সে হতাশ বাকিও। তার কথায়, ‘রেঞ্জে দাঁড়ানোর পর প্রথম দিকে সব ঠিকই ছিল। কিন্তু সময় গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে মনসংযোগ ধরে রাখতে পারিনি। জানি না কি হয়েছিল আমার।’ শিষ্য যে চাপে ছিলেন তা স্বীকার করলেন কোচ গোলাম শফিউদ্দিন খান শিপলু।

অলিম্পিক নিয়ে ঘোর আশঙ্কায় টোকিও - NEWZ POLE

তার কথা, ‘প্রথম পাঁচটি সিরিজ ভালো করেছিল বাকি। কিন্তু পরের ছয়টি সিরিজে যে কি হল বাকির, তা বুঝতে পারলাম না। অলিম্পিকে দাঁড়ালেই কেমন যেন হয়ে যায় সে।’ তিনি যোগ করেন, ‘তবে আজকে (রবিবার) একটি জিনিস আমি লক্ষ্য করলাম, বাকির আচরণ আগের মতো ছিল না। অন্য সময় আমার টিপস নেওয়ার জন্য পেছন দিকে তাকাতো বাকি। কিন্তু আজ (গতকাল) সে পেছনে তাকায়নি। বার বার আমি সংকেত দিচ্ছিলাম। নড়াচড়া করছিলাম, কিন্তু কোনো দিকেই যেন ভ্রুক্ষেপ ছিল না তার।’

ইত্তেফাক/জেডএইচডি

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x