বিসিবি নির্বাচনে আসছে চমকে দেওয়া নাম

বিসিবি নির্বাচনে আসছে চমকে দেওয়া নাম
ছবি: সংগৃহীত

দেশের সবচেয়ে ধনাঢ্য ক্রীড়া ফেডারেশন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) নির্বাচন আগামী মাসের প্রথম সপ্তাহেই অনুষ্ঠিত হবে। ইতোমধ্যে নির্বাচন কমিশন গঠন করা হয়েছে। আজ-কালের মধ্যেই সভায় বসবে ৫ সদস্যের নির্বাচন কমিশন। এ সভা থেকেই তফসিল ঘোষণা ও নির্বাচনের চূড়ান্ত দিনক্ষণ জানা যাবে। দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলেছে কাউন্সিলর মনোনয়নের কাজ। জানা গেছে, আগামী ২০ সেপ্টেম্বরই কাউন্সিলর তালিকা চূড়ান্ত হয়ে যাবে।

জানতে চাইলে নির্বাচন কমিশনের সদস্য ও বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজন বলেছেন, ‘নির্বাচন কমিশন খুব দ্রুতই সভায় বসবে, তারপর তারিখ ঠিক হবে। আশা করা যাচ্ছে আগামী মাসের প্রথম সপ্তাহে নির্বাচন হয়ে যাবে। তফসিল কবে ঘোষণা হবে, এটা নির্বাচন কমিশনের বৈঠকে ঠিক হবে। বোর্ড কাউন্সিলর তালিকা চূড়ান্ত করে তারপর নির্বাচন কমিশনকে দিবে।’

আইসিসি টি-২০ বিশ্বকাপের আগেই নির্বাচন সম্পন্ন করতে চায় বিসিবি। আসন্ন নির্বাচনকে ঘিরে অবশ্য অতীতের মতো উত্তাপ নেই। তবে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের ঘোষণা অনুযায়ী কিছুটা ভিন্নতা আসবে, পরিবর্তন হবে পরিচালনা পর্ষদে। কিছু নতুন মুখ দেখা যেতে পারে পরিচালক হিসেবে। পরিচালকদের ৫-৬টি স্থানে পরিবর্তন নিয়েই জল্পনা-কল্পনা চলছে। নতুন কারা আসছেন বিসিবির পরিচালক হয়ে, তা জানতে ক্রিকেটাঙ্গনে আগ্রহের অভাব নেই।

পরিচালকদের সূত্রে জানা গেছে, ক্যাটাগরি-১ তথা জেলা ও বিভাগের ১০টি পরিচালক পদে খুব বেশি পরিবর্তনের সম্ভাবনা নেই। তাও সর্বোচ্চ ২-৩টি পরিবর্তন আসতে পারে। চট্টগ্রাম (২টি), রাজশাহী (১টি), রংপুর (১টি), সিলেট (১টি), বরিশাল (১টি), খুলনায় (২টি) পরিবর্তনের সম্ভাবনা কম। ঢাকা বিভাগ থেকে সাবেক অধিনায়ক নাঈমুর রহমান দুর্জয়ের অবস্থান সুনিশ্চিত। তবে কিশোরগঞ্জের সৈয়দ আশফাকুল ইসলামের জায়গায় নতুন কাউকে দেখা যেতে পারে। নারায়ণগঞ্জের তানভির আহমেদ টিটুসহ কয়েকজনের নাম আলোচনায় আছে।

ক্যাটাগরি-২ মানে ঢাকার ক্লাবগুলোর ১২ পরিচালকের পদে অপেক্ষাকৃত বেশি পরিবর্তন আসতে পারে। ক্যাটাগরি-৩ এবং জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের (এনএসসি) মনোনীত ২ পরিচালকদের পদেও রদবদলের সম্ভাবনা রয়েছে।

গুঞ্জন আছে, সর্বশেষ নির্বাচনে ক্লাবগুলো থেকে পরিচালক হওয়া লোকমান হোসেন ভূঁইয়া, তানজিল চৌধুরী, শওকত আজিজ রাসেল, হানিফ ভূঁইয়ারা এবার সুযোগ নাও পেতে পারেন। এনায়েত হোসেন সিরাজকে নিয়েও ধোঁয়াশা রয়েছে। যদিও তার ঘনিষ্ঠ সূত্র জানিয়েছে, নির্বাচনে আগ্রহী নন, এমন কথা কাউকে বলেননি তিনি। একই বক্তব্য পাওয়া গেছে হানিফ ভূঁইয়ার পক্ষ থেকেও।

নতুন মুখ হিসেবে আলোচনায় আছে প্রয়াত বিসিবি পরিচালক আফজালুর রহমান সিনহার ছেলে ফাহিম সিনহার নাম। তার বোর্ড পরিচালক হওয়াটা প্রায় সুনিশ্চিত। মোহামেডানের ক্রিকেট কমিটির চেয়ারম্যান মাসুদুজ্জামানের নামও জোরেশোরেই উচ্চারিত হচ্ছে।

চমকে দেওয়া নামও আছে বিসিবির সম্ভাব্য পরিচালকের তালিকায়। জানা গেছে, সাবেক ক্রিকেটার ইফতেখার আহমেদ মিঠু হয়ে যেতে পারেন বিসিবি পরিচালক। আগের নির্বাচনেও বিসিবির বর্তমান কমিটির বিরুদ্ধে সরব ছিলেন তিনি। তবে সম্প্রতি দৃশ্যপট কিছুটা বদলে গেছে, এখন বিসিবির ক্ষমতাসীনদের সঙ্গে একই ছাতার নিচেই আছেন মিঠু। তাছাড়া সীমান্তের ওপাড় থেকে বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলির সুপারিশও নাকি রয়েছে তার জন্য। কারণ বাংলাদেশে মহারাজের ঘনিষ্ঠ কয়েকজনের মধ্যে অন্যতম মিঠু।

তবে নির্বাচন কেন্দ্রিক এসব পরিবর্তন এখনও আলোচনার পর্যায়ে আছে। সংশ্লিষ্ট সূত্রের দাবি, আগামী ২০ সেপ্টেম্বরের পর বিষয়গুলো চূড়ান্ত রূপ পাবে এবং সবকিছুর দেখভাল করছেন খোদ বোর্ড সভাপতি।

ইত্তেফাক/এসআই

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x