বিতর্কিত পেনাল্টি: সাফ থেকে বাংলাদেশের বিদায়

বিতর্কিত পেনাল্টি: সাফ থেকে বাংলাদেশের বিদায়
নেপাল-বাংলাদেশের খেলা শেষে বিতর্ক। ছবি: সংগৃহীত

৯ মিনিটে সুমন রেজার গোলে এগিয়ে যাওয়া বাংলাদেশ ৮৭ মিনিট পর্যন্ত লিড ধরে রেখেও জিততে পারল না। শেষ মুর্হুতে বিতর্কিত পেনাল্টি থেকে সমতায় ফেরে নেপাল। তাতেই প্রথমবার দক্ষিণ এশিয়ার সেরা হওয়ার প্রতিযোগিতায় ফাইনালে উঠল তারা।

১-১ গোলের ড্রয়ে আবারো সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে আরেকটি ব্যর্থতার গল্প লিখল লাল সবুজের প্রতিনিধিরা। দারুণ সব সেভে আনিসুর রহমান জিকো লিড ধরে রেখে এগিয়ে যাওয়ার ৭৮ মিনিটে তিনি লাল কার্ড দেখেন। তাতেই সব সর্বনাশের সূচনা। পেনাল্টি থেকে গোল হজম করে ৮৮ মিনিটে।

শেষ মুহূর্তে স্বপ্নভঙ্গ, বাংলাদেশের ফুটবলের সঙ্গে যেন এই শব্দগুলোর ভীষণ সখ্য। আরও একবার শেষ মুহূর্তে এসে স্বপ্ন ভাঙলো লাল সবুজ জার্সিধারীদের। নেপালকে হারাতে পারলেই সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনাল নিশ্চিত হয়ে যেতো। এমন সমীকরণ মাথায় নিয়ে ম্যাচের প্রথমেই এগিয়ে গিয়েছিল বাংলাদেশ। লিডটা ধরে রেখেছিল ৮৬ মিনিট পর্যন্ত।

No description available.

কিন্তু শেষ মুহূর্তে এসে ভুল করে বসলো লাল সবুজের প্রতিনিধিরা। বিপজ্জনক জায়গায় নেপালের এক ফুটবলারকে ফেলে দিলেন ডিফেন্ডার সাদউদ্দিন। রেফারি পেনাল্টির বাঁশি বাজাতেই সব শেষ। ১-১ গোলে ড্র হয়ে গেলো বাংলাদেশের ফাইনাল নিশ্চিত করার ম্যাচটি। ফলে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে বিদায় হয়ে গেছে অস্কার ব্রুজনের দলের। নেপাল উঠে গেছে ফাইনালে।

নেপালের বিপক্ষে স্বস্তি নিয়ে প্রথমার্ধ শেষ করল বাংলাদেশ। ৯ মিনিটে সুমনের গোলে এগিয়ে যায় তারা। তারপর আক্রমণ-প্রতি আক্রমণে সাজানো ছিল বাকি সময়। যেখানে নেপাল যেমন সুযোগ নষ্ট করেছে, তেমনই সুযোগ কাজে লাগাতে পারেনি বাংলাদেশও। বল দখলের লড়াইয়ে বাংলাদেশ (৩৪%) নেপালের চেয়ে (৬৬%) পিছিয়ে থাকলেও কাজের কাজটা করেছে একমাত্র গোল করে।

ইত্তেফাক/এসআই

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x