অক্সফোর্ডের ভ্যাকসিন ব্যবহারের অনুমতি দিল সরকার

অক্সফোর্ডের ভ্যাকসিন ব্যবহারের অনুমতি দিল সরকার
ওষুধ প্রশাসন অধিদফতর। ফাইল ছবি

অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি করোনার ভ্যাকসিন জরুরি ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছে সরকার। এর ফলে বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস ওই ভ্যাকসিন আমদানি করে দেশের সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে সরবরাহ করতে পারবে।

বৃহস্পতিবার (৭ জানুয়ারি) বিকালে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বলে গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন ওষুধ প্রশাসন অধিদফতরের উপ-পরিচালক মোহাম্মদ সালাউদ্দিন। তিনি বলেন, ‘অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার ভ্যাকসিন যা ভারতের সিরাম ইনস্টিটিটিউট উৎপাদন করছে। কোভিড-১৯ মোকাবেলায় ব্যবহার করার ভ্যাকসিন এটি। ভ্যাকসিনটি আমাদের দেশে আনবে বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড। এই ভ্যাকসিন আমদানির জন্য বেক্সিমকোকে ইমার্জেন্সি ইউজ অথারেজাইশন দেওয়া হয়েছে। এর ফলে বাংলাদেশে এটি আমদানির ক্ষেত্রে আর কোনো বাধা থাকল না। এটি ব্যবহারের ক্ষেত্রে আর কোনো বাধা থাকবে না।’

এর আগে গত ৪ জানুয়ারি অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি ভ্যাকসিন দেশে আনতে এনওসি (অনাপত্তিপত্র) দেয় ওষুধ প্রশাসন অধিদফতর। সালাউদ্দিন বলেন, আজ পাবলিক হেলথ ইমার্জেন্সি কমিটির মিটিং ছিল। ১৪ সদস্যের সে কমিটির সুপারিশে ভ্যাকসিনের মূল্যায়ন, রিভিউসহ সবদিক পর্যালোচনা করে অনুমতি দেওয়া হয়।

তিনি আরও বলেন, ‘যুক্তরাজ্যের মেডিসিনস অ্যান্ড হেলথ কেয়ার প্রোডাক্ট রেগুলেটরি এজেন্সি (এমএইচআরএ) জরুরি ব্যবহারের জন্য অক্সফোর্ডের ভ্যাকসিনের অনুমোদন দিয়েছে। তাই আমরাও এটির অনুমোদন দিতে পেরেছি। জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দেওয়ায় আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান এই টিকা সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালগুলোতে কিংবা কোনো টিকা কর্মসূচিতে সরবরাহ করতে পারবে।’

এর আগে, ঔষধ প্রশাসন অধিদফতরের ১৪ সদস্যের বিশেষজ্ঞ কমিটি ভ্যাকসিনটি জরুরি অনুমোদনের জন্য সুপারিশ করে। এর পরিপ্রেক্ষিতে এটির অনুমোদন দেওয়া হলো বলে জানান ঔষধ প্রশাসন অধিদফতরের উপ-পরিচালক।

ইত্তেফাক/এসআই

Nogod
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত