ঢাকা বুধবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
১৯ °সে


ঈশ্বরদীতে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের জমি দখল!

ঈশ্বরদীতে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের জমি দখল!
সংবাদ সম্মেলনে অসুস্থ মুক্তিযোদ্ধা আহম্মদ আলী সরদার। ছবি: ইত্তেফাক।

আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ঈশ্বরদীর মানিকনগর গ্রামে এক মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের জমি দখলের অভিযোগ উঠেছে আনসার ভিডিপির বিরুদ্ধে। এর প্রতিবাদে সোমবার সংবাদ সম্মেলন করেছে মুক্তিযোদ্ধা ওই পরিবার। দখলকৃত ওই জমির মালিক গ্রামের অসুস্থ মুক্তিযোদ্ধা আহম্মদ আলী সরদার।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মুক্তিযোদ্ধা আহম্মদ আলী সরদার জানান, ১৯৫১ সালে তার পিতা মনছের আলী সরদার ২.৪৯ একর জমি ক্রয় করেন। ওয়ারিশ সূত্রে তিনি ও তার ৭ ভাই-বোন এই জমির মালিক। ওই জমিতে তারা কৃষি কাজ করতেন। ১৯৬৫ সালে পাক-ভারত যুদ্ধের সময় ওই জমিতে সামরিক প্রশিক্ষণ দেয়ার জন্য অস্থায়ীভাবে আনসার ভিডিপি ক্যাম্প স্থাপন করে । ১৯৮১ সাল পর্যন্ত ওই জমির খাজনা নেয়া হলেও আরএস রেকর্ডে ভুলবশত জমি আনসার ভিডিপি’র নামে রেকর্ড হয়।

লিখিত বক্তব্যে আহম্মদ আলী অভিযোগ করেন, পিতা মনছের আলী মারা যাওয়ার পর আমরা ওয়ারিশরা খাজনা দিতে গেলে আর খাজনা নেয়া হয়নি। এ বিষয়ে পাবনার যুগ্ম জজ আদালতে স্বত্ব ঘোষণার দাবীতে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মুক্তিযোদ্ধা আহম্মদ আলী আরও বলেন, মামলা চলাকালে আনসার ভিডিপির নামধারীরা ওই জমির সীমানা দেয়াল ও পাকা ঘর নির্মাণের চেষ্টা করেন। পরে দেওয়ানী কার্যবিধির ১৫১ ধারায় বাদীপক্ষ আদালতে আবেদন জানালে আদালত স্থাপনা নির্মাণে নিষেধাজ্ঞা জারি করেন। তারপরও নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে নালিশী জমিতে জবর দখল করে সীমানা দেয়াল ও পাকা ঘর নির্মাণ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: নতুন সড়ক আইন প্রয়োগে বাড়াবাড়ি নয়: ওবায়দুল কাদের

এসময় অন্যান্য ওয়ারিশদের মধ্যে মোক্তার সরদার, আমজাদ সরদার, ইসলাম সরদার, আজমাল সরদার, জিন্না খাতুন ও হাউচজান এবং তাদের অন্যান্য উত্তরাধিকার উপস্থিত ছিলেন। দখলকারীরা প্রায়ই তাদের উচ্ছেদ ও বিভিন্ন প্রকার ভয়-ভীতি ও হুমকি দিচ্ছেন বলে অভিযোগ করেন মুক্তিযোদ্ধা ওই পরিবার।

ইত্তেফাক/এসএইচএম

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
১১ ডিসেম্বর, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন