কামারখন্দে চোর সন্দেহে গাছে বেঁধে নির্যাতনে পুলিশের মামলা, গ্রেফতার ১

কামারখন্দে চোর সন্দেহে গাছে বেঁধে নির্যাতনে পুলিশের মামলা, গ্রেফতার ১
কামারখন্দে ছাগল চোর সন্দেহে এক ব্যক্তিকে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতনের পুলিশের মামলায় গ্রেফতার প্রধান নির্যাতনকারী ফরহাদুল হক হ্যাপি (বায়ে)। ছবি: ইত্তেফাক

সিরাজগঞ্জের কামারখন্দে ছাগল চোর সন্দেহে এক ব্যক্তিকে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতনের ঘটনায় পুলিশ বাদি হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। কামারখন্দ থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) আফজাল হোসেন বাদি হয়ে চারজনের নাম উল্লেখ করে শনিবার দিবাগত রাতে থানায় মামলা দায়ের করেন। এ মামলায় মামলার প্রধান আসামী ফরহাদুল হক হ্যাপিকে (৪৪) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রবিবার ভোরে উপজেলার বলরামপুর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। হ্যাপি উপজেলার ধোপকান্দি গ্রামের বাসিন্দা ও স্থানীয় মাছ ব্যবসায়ী।

কামারখন্দ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম জানান, এ মামলায় একজনকে গ্রেফতার করে রবিবার দুপুরে সিরাজগঞ্জ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। বাকি আসামীদের গ্রেফতারের পাশাপাশি ভিকটিমকে খুঁজে বের করার চেষ্টা অব্যাহত আছে।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার বিকেলে হ্যাপি ও তার ছেলেসহ আরও কয়েকজন ছাগল চোর সন্দেহে এক ব্যক্তিকে গাছের সঙ্গে বেঁধে তার ওপর অমানবিক নির্যাতন চালায়। নির্যাতনের একটি ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়। পরে ওই ভিডিও দেখে দৈনিক ইত্তেফাকে প্রতিবেদন প্রকাশ হলে পুলিশ ঘটনাটি আমলে নেয় এবং পরে মামলা দায়ের করে।

ইত্তেফাক/এসি

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত