ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০১৯, ১১ আষাঢ় ১৪২৬
৩২ °সে


সীতাকুণ্ডে চাঁদাবাজ ফেরত দিল হিন্দু শিক্ষকের ১০ লাখ টাকা

সীতাকুণ্ডে চাঁদাবাজ ফেরত দিল হিন্দু শিক্ষকের ১০ লাখ টাকা
সীতাকুণ্ড। ছবিঃ গুগল ম্যাপ থেকে।

সীতাকুণ্ডে স্থানীয় এমপি ভূমিদস্যু চাঁদাবাজকে পুলিশে দিলে এক হিন্দু শিক্ষক তার ১০ লাখ টাকা ফেরত পেয়েছেন। এদিকে এ ধরনের পদক্ষেপে এলাকাবাসীর মধ্যে স্বস্তি বিরাজসহ ব্যাপকভাবে প্রশংসিত হয়েছেন স্থানীয় সাংসদ।

সরেজমিনে জানা যায়, ৯নং ভাটিয়ারী ইউনিয়নের অক্সিজেন রোড এলাকার বাসিন্দা অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক নরেশ চন্দ্র পালের ৬ শতক জায়গার ওপর কিছুদিন আগে সাইনবোর্ড লাগিয়ে দেয় একই এলাকার ভূমিদস্যু চাঁদাবাজ মোঃ মহিউদ্দিন। বিভিন্ন সমস্যা ও ভুয়া ওয়ারিশ সনদ তৈরি করে নরেশ পালের কাছে ১০ লাখ টাকা দাবি করে ঐ টাকা আদায় করেও নেয়। কিন্তু সে এখানেই থামে না। নরেশ চন্দ্র পালের কাছে আরো টাকার জন্য চাপ সৃষ্টি করলে নরেশ স্থানীয় এমপি আলহাজ্ব দিদারুল আলমের কাছে বিষয়টি জানান।

অভিযোগ পেয়ে সাংসদ ভূমিদস্যু মহিউদ্দিনকে গত শুক্রবার বিকালে ডেকে আনেন। মহিউদ্দিন উপায়ন্তর না পেয়ে শিক্ষক নরেশ চন্দ্র পালের ১০ লাখ টাকা দিতে বাধ্য হয়। তবে মহিউদ্দিন সত্যতা স্বীকার করে বলে, সে একটি প্রভাবশালী ভূমিদস্যু চক্রের ইন্ধনে এ সব অবৈধ কর্মকাণ্ডগুলো করে।

নরেশ চন্দ্র পাল বলেন, ‘মহিউদ্দিন এলাকার বড় মাপের চাঁদাবাজ এবং ভূমিদস্যু। স্থানীয় এমপির হস্তক্ষেপ না হলে আমি টাকাও ফেরত পেতাম না।বরং আরো হয়রানির স্বীকার হতাম।’

আরও পড়ুনঃ সাঁথিয়ায় ডিবি পরিচয়ে দিনে-দুপুুরে ছিনতাই চেষ্টা

এ ব্যাপারে দিদারুল আলম এমপি বলেন, ‘আমি ঘটনাটি শুনে তাকে পুলিশে দিয়ে শিক্ষক সাহেবের ১০ লাখ টাকা আদায় করে দেই। আর এধরনের কোন কাজ ভবিষ্যতেও কাউকে প্রশ্রয় দেওয়া হবে না।’

ইত্তেফাক/নূহু

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২৫ জুন, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন