সিপিপির শ্রেষ্ঠ স্বেচ্ছাসেবক হলেন আমতলী পৌর মেয়র মতিয়ার

সিপিপির শ্রেষ্ঠ স্বেচ্ছাসেবক হলেন আমতলী পৌর মেয়র মতিয়ার
সিপিপির শ্রেষ্ঠ স্বেচ্ছাসেবক হলেন আমতলী পৌর মেয়র মতিয়ার।ছবি: ইত্তেফাক

বিভিন্ন সময় প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবিলা ও উপকূলীয় অঞ্চলের দুর্যোগকালীন সময় ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচি বাস্তবায়নের জন্য সিপিপির শ্রেষ্ঠ স্বেচ্ছাসেবক নির্বাচিত হয়েছেন বরগুনার আমতলী পৌরসভার মেয়র মো. মতিয়ার রহমান। কর্মদক্ষতার স্বীকৃতি এবং টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য অর্জনের পথে সাফল্যের জন্য দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় মতিয়ার রহমানকে শ্রেষ্ঠ সিপিপি স্বেচ্ছাসেবক নির্বাচিত করেন।

মঙ্গলবার(১৩ অক্টোবর) আন্তর্জাতিক দুর্যোগ প্রশমন দিবস উপলক্ষে ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে আয়োজিত ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সিপিপির শ্রেষ্ঠ সেচ্ছাসেবকদের পুরস্কৃত করেন ও সনদপত্র দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন: জাতীয় খেলা কাবাডি অচিরেই তার হারানো ঐতিহ্য ফিরে পাবে: ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

এসময় অনুষ্ঠান থেকেই অনলাইনে দুর্যোগ সহনীয় নবনির্মিত ১৭ হাজারেরও বেশি বাসগৃহ উদ্বোধন, চাবি হস্তান্তর এবং দুর্যোগ প্রস্তুতির জন্য ১৮ হাজার ৫০৫ জন নারী স্বেচ্ছাসেবকে জাতীয় তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করেন প্রধানমন্ত্রী।

বরগুনার আমতলী পৌরসভার মেয়র মো. মতিয়ার রহমান পৌরসভাকে একটি সুন্দর ও পরিচ্ছন্ন নগরী হিসেবে জনগণকে উপহার দিয়েছেন। ঠিক তেমনি একজন স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে চষে বেড়িয়েছেন গোটা উপজেলা। বিভিন্ন সময় প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবিলা সামনে থেকে কাজ করেছেন জনগণের সাথে। ডেঙ্গু মশা নিধন কর্মসূচিতেও তিনি সাফল্য দেখিয়েছেন। সর্বশেষ বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাসের প্রভাবে যখন মানুষ গৃহবন্দী তখন সেবা নিয়ে ছুটে গেছেন মানুষের দ্বারে দ্বারে। জনগণকে সচেতন করতে নিজেই মাঠে নেমে মাইকিং, মাস্ক বিতরণ, স্যানিটাইজার বিতরণসহ নানামুখী উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন। কর্মহীন গৃহবন্দী মানুষের ঘরে ঘরে সরকারের সহায়তার খাদ্য সহায়তা পৌঁছে দেওয়ার পাশাপাশি নিজের ব্যক্তিগত অর্থায়নেও খাদ্য সহায়তা বিতরণ করেছেন তিনি। করোনার ছোবলে বিপর্যস্ত মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে বাড়িয়ে দিয়েছেন মানবতার হাত।

আমতলী পৌর মেয়র ও উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মো. মতিয়ার রহমান বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছ থেকে ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচির (সিপিপি) শ্রেষ্ঠ স্বেচ্ছাসেবকের পুরস্কার পেয়ে গর্ববোধ করছি। এই সম্মাননা আমাকে আগামীতেও জনসেবায় উৎসাহ যোগাবে। এইজন্য সরকার ও এলাকাবাসীকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানাই।

ইত্তেফাক/এএএম

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত