সুন্দরবনে আগুন জ্বলছে

সুন্দরবনে আগুন জ্বলছে
সুন্দরবনের শরণখোলা রেঞ্জের দাসেরভারানী টহল ফাঁড়ির বনে আগুন জ্বলছে। ছবি: ইত্তেফাক

পূর্ব সুন্দরবনের শরণখোলা রেঞ্জের দাসেরভারানী টহল ফাঁড়ির বনে সোমবার ( ৩ মে) সকালে আগুন লেগেছে। আনুমানিক পাঁচ একর বনাঞ্চল জুড়ে আগুন জ্বলছে। বন বিভাগ এলাকাবাসী, থানা পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিস আগুন নেভানোর কাজ শুরু করেছেন।

সোমবার দুপুরে সরেজমিনে সুন্দরবনের অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা যায়, বনের ব্যাপক জায়গা জুড়ে আগুন জ্বলছে। আগুনে বনের শুকনো লতা পাতা গুল্ম পুড়ে যাচ্ছে। ধোয়ায় ব্যাপক জায়গা আচ্ছন্ন হয়ে পড়ছে। আগুন নেভানোর কাজে যোগ দেয়া স্থানীয়রা বলেন, সুন্দরবনের দাসেরভারানি এলাকায় আগুন লাগার খবর পেয়ে আমরা শতাধিক গ্রামবাসী সেখানে ছুটে এসেছি। আমরা বাড়ি থেকে কলসি, বালতি, জগ ও হাড়ি নিয়ে পাশের ভোলা নদী থেকে পানি নিয়ে একদল গ্রামবাসী আগুন নেভাতে চেষ্টা চালাচ্ছি।

অন্য একটি দল আগুন যাতে সুন্দরবনের সব দিয়ে ছড়িয়ে পড়তে না পারে সেজন্য ফায়ার লাইন (আগুনের অংশের মাটি আলাদা করা) কাটার কাজ করছি। মরা ভোলা নদী থেকে আগুন লাগার স্থানের দূরত্ব প্রায় এক কিলোমিটার। দূরে হওয়ায় পানি পেতে কষ্ট হচ্ছে। এখানে অন্য কোন পানির উৎস নেই। যার কারণে আগুন নেভাতে বেগ পেতে হচ্ছে। প্রায় পাঁচ একর এলাকায় আগুন ছড়িয়ে পড়েছে বলে তাদের ধারনা। আগুন নেভানোর কাজে নিয়োজিত নাংলী টহল ফাঁড়ি এলাকার সিপিজি টীম লিডার লুৎফর রহমান বলেন,বনের ২৪ নং কম্পার্টমেন্টের প্রায় ৫ একর জায়গা জুড়ে আগুন জ্বলছে এবং বাতাসের তীব্রতায় আগুন দ্রুত আশে পাশে ছড়িয়ে পড়ছে। আগুন নেভানোর জন্য শরণখোলা ফায়ার সার্ভিসের একটি গাড়ী ঘটনাস্থলে কাজ করছে।

বন বিভাগের শরণখোলা ষ্টেশন কর্মকর্তা আঃ মান্নান জানান, তারা সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে আগুনের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে এসে স্থানীয় জনসাধারণের সহায়তায় ফায়ার লাইন কাটছেন যাতে আগুন ছড়াতে না পারে। তিনি বলেন মাটির নীচে জমে থাকা মিথেন গ্যাসের কারণে আনুমানিক দেড় একর জায়গা জুড়ে জ্বলছে। এর আগে গত ৮ ফেব্রুয়ারি সুন্দরবন পূর্ব বিভাগের চাঁদপাই রেঞ্জের ধানসাগর এলাকার চার শতক বনভূমি পুড়ে যায়।

অগ্নিকাণ্ডের খবর পেয়ে বন বিভাগের খুলনা অঞ্চলের বন সংরক্ষক ( সিএফ) মোঃ মইনুদ্দিন খান এবং পূর্ব বন বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা ( ডিএফও) মুহাম্মদ বেলায়েত হোসেন ঘটনাস্থলে যান।

সুন্দরবন পূর্ব বন বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা ( ডিএফও) মুহাম্মদ বেলায়েত হোসেন মুঠোফোনে বলেন, অগ্নিকান্ডের কারণ এবং ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ এ মুহূর্তে বলা সম্ভব নয়।

ইত্তেফাক/এসআই

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x