স্বামীর অফিস থেকে স্ত্রীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার

স্বামীর অফিস থেকে স্ত্রীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার
ছবি: সংগৃহীত

রংপুরের তারাগঞ্জে ব্র্যাক এর দামোদরপুর শাখা অফিস থেকে বুধবার (৯ জুন) দুপুরে এক নারীর মরদেহ ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করেছে তারাগঞ্জ থানা পুলিশ। উদ্ধারকৃত মরদেহ দিনাজপুর জেলার চিরিরবন্দর উপজেলার দৌলতপুর গ্রামের তৈয়ব আলীর মেয়ে হাফিজা বেগম (৩২) এর বলে জানা গেছে।

তারাগঞ্জ থানা সূত্রে জানা গেছে, হাফিজা বেগম ওই ব্র্যাক অফিসের কর্মী নূর আলমের স্ত্রী। ২০১০ সালে দিনাজপুর জেলার বোচাগঞ্জ উপজেলার বড় পরমেশ্বরপুর গ্রামের মৃত হাফিজার উদ্দিনের পুত্র নূর আলমের সাথে বিয়ে হয় তার। এর আগে ২০১৪ সালে তাদের একমাত্র সন্তান নাহিদ শাহরিয়ার হিমেল মাত্র সাড়ে ৮মাস বয়সে মারা যায়। সন্তানের মৃত্যুর পর থেকে মানসিক যন্ত্রনায় ভুগছিলেন ওই নারী।

বুধবার সকাল আনুমানিক সাড়ে ৯টার দিকে ভাড়া বাসা থেকে স্বামীকে খুঁজতে তার কর্মরত অফিসে আসলে সেখানে কাউকে না পেয়ে গলায় ওড়না পেচিয়ে ফ্যানের সাথে ঝুঁলে আত্মহত্যা করে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ঝুঁলন্ত অবস্থায় ওই নারীর মরদেহ উদ্ধার করে তারাগঞ্জ থানা পুলিশ।

তারাগঞ্জ থানার ওসি ফারুক আহমেদ বলেন, খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই নারীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে লাশের সুরৎহাল রিপোর্ট তৈরি করা হয়েছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। তবে এব্যাপারে থানায় একটি অপমৃত্যু মামলার হয়েছে।

ইত্তেফাক/এনএ

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x