কঠোর বিধিনিষেধেও শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে মানুষের ভিড় 

কঠোর বিধিনিষেধেও শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে মানুষের ভিড় 
কঠোর বিধিনিষেধেও মাদারীপুর শিবচরের বাংলাবাজার নৌরুটে যানবাহন ও মানুষের ভিড়। ছবি: ইত্তেফাক 

চলমান কঠোর লকডাউনের প্রথম দিন ভোর ৬টা থেকেই যাত্রী পারাপার এবং যাত্রীবহনকারী সকল যানবাহন ফেরিতে তোলার বিষয়ে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিল সরকার। কিন্তু (২৩ জুন) গাড়ি ঘাটে বেশি থাকায় তা বাধ্য হয়েই ফেরিতে তুলেছিল কর্তৃপক্ষ। একদিন পর (২৪ জুলাই) একই চিত্র দেখা গেছে শিমুলিয়া বাংলাবাজার ঘাটে। এ নৌরুটে জরুরি পণ্যসেবা, রোগী ও লাশবাহী গাড়ি পার করার জন্য ফেরি রাখা হলেও সুযোগ বুঝে যাত্রী ও ছোট গাড়ি পার হয়ে যাচ্ছে।

সরজমিনে ৩ নং ফেরি ঘাটে গিয়ে দেখা যায়, আজও শনিবার দুপুরে বাংলা বাজার ফেরিঘাটে আসা সব ফেরিতেই যাত্রী এবং বিভিন্ন ধরণের যানবাহন ফেরিতে উঠতে ও নামতে দেখা গেছে। শুধুমাত্র দূরপাল্লার বাস চলাচল বন্ধ আছে। তবে সকাল থেকে শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে সব ধরনের লঞ্চ চলাচল বন্ধ রয়েছে।

এ ব্যাপারে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন করপোরেশন (বিআইডব্লিউটিসি) বাংলাবাজার ঘাটের ব্যবস্থাপক সালাউদ্দিন আহমেদ বলেন, জরুরি পণ্যসেবা, রোগী ও লাশবাহী গাড়ি পার করার জন্য ফেরি প্রস্তুত রাখা হয়েছে। তবে, সুযোগ বুঝে যাত্রী ও ছোট গাড়িও পার হয়ে যাচ্ছে। মানবিক কারণে তাদের ফেরি থেকে নামিয়ে দেওয়া যাচ্ছে না। শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে আজ ৮টি ফেরি চলাচল করছে।

এই ব্যাপারে বাংলাবাজার ঘাটের পুলিশ পরিদর্শক (টিআই) বিপ্লব জামাল বলেন, ফেরিতে জরুরি পণ্যসেবা, রোগী ও লাশবাহী গাড়ি পার করার জন্য। যাত্রীরা দূরে মোটরসাইকেল রেখে সুযোগ বুঝে ফেরিতে উঠিয়ে পড়ছে। মানবিক কারণে তাদেরকে নামাতে পারছি না।

ইত্তেফাক/এমএএম

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x