ঢাকা শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০১৯, ৬ বৈশাখ ১৪২৬
২৫ °সে

কোটালীপাড়ায় চেয়ারম্যান প্রার্থীদের ব্যাপক গণসংযোগ

কোটালীপাড়ায় চেয়ারম্যান প্রার্থীদের ব্যাপক গণসংযোগ
ছবি : সংগৃহীত

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের আর মাত্র চারদিন বাকি। এখন প্রতিদিন সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত চলছে প্রার্থীদের গণসংযোগ। প্রার্থীদের কর্মী সমর্থকরা ভোটারদের দ্বারে দ্বারে গিয়ে ভোট প্রার্থনা করছেন।

এবারের নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে তিনজন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এরা হলেন, বর্তমান চেয়ারম্যান মুজিবুর রহমান হাওলাদার, সাবেক চেয়ারম্যান বিমল কৃষ্ণ বিশ্বাস, আওয়ামী লীগ নেতা কমল চন্দ্র সেন।

চেয়ারম্যান প্রার্থী মুজিবুর রহমান হাওলাদার গত মঙ্গলবার সারাদিন উপজেলার হিরন, বর্ষাপাড়া, পোলশাইর, উনশিয়া, সিতাইকুন্ডসহ প্রায় ২০টি জনবহুল এলাকায় গণসংযোগ করেন। এ সময় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক পৌর মেয়র এইচ এম অহিদুল ইসলাম, আওয়ামী লীগ নেতা জাহাঙ্গীর হোসেন খান, জেলা পরিষদ সদস্য মাজাহারুল আলম পান্না, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ কোটালীপাড়া শাখার সভাপতি মাইকেল হিরোহিত বিশ্বাস, সাধারণ সম্পাদক নারায়ন চন্দ্র দাম, উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি মুন্সি এবাদুল ইসলাম, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুুগ্ম আহবায়ক এস এম ইস্রাফিল, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি বাবুল হাজরাসহ বিপুল সংখ্যক আওয়ামী দলীয় নেতা-কর্মী তার সঙ্গে ছিলেন।

এছাড়াও অন্য দুই প্রার্থী বিমল কৃষ্ণ বিশ্বাস ও কমল চন্দ্র সেন উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় গণসংযোগ করেন। উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক পৌর মেয়র এইচ এম অহিদুল ইসলাম বলেন, সারা দেশে দলীয় মনোনয়নে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন হলেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজ নির্বাচনী এলাকার এ উপজেলায় কাউকে মনোনয়ন দেয়া হয়নি। এখানে তিনজন চেয়ারম্যান প্রার্থী স্বতন্ত্রভাবে নির্বাচন করছেন।

বাংলাদেশ পূজা উদ্যাপন পরিষদ কেটালীপাড়া শাখার সভাপতি মাইকেল হিরোহিত বিশ্বাস বলেন, কোটালীপাড়া হচ্ছে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির লীলাভুমি। এখানে সাম্প্রদায়িকতার কোন স্থান নেই। মুজিবুর রহমান হাওলাদার একজন অসাম্প্রদায়িক লোক। তিনি বিগত ৫টি বছর সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রেখে উপজেলা পরিষদ চালিয়েছেন। তাই এখন গোটা উপজেলাবাসী তার গুণকীর্তন করছে।

মুজিবুর রহমান হাওলাদার বলেন, বিগত ৫ বছর আমি প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার সহযোগিতায় অত্র উপজেলায় ব্যাপক উন্নয়ন করেছি। আশা করি আমার এই কর্মকাণ্ড বিবেচনা করে জনগণ এবারও আমাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করবে।

ইত্তেফাক/এএম

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
১৯ এপ্রিল, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন