ঢাকা মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ৬ কার্তিক ১৪২৬
২৭ °সে


তারা নিষেধ শোনেনি

তারা নিষেধ শোনেনি
লক্ষ্মীপুরে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ ধরায় ১৯ জন জেলেকে জেলজরিমানা করে ভ্রাম্যমাণ আদালত। ছবি: ইত্তেফাক

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মা ইলিশ ধরার অপরাধে লক্ষ্মীপুরের রামগতি ও কমলনগর উপজেলার মেঘনা নদীতে অভিযান চালিয়ে ১৯ জন জেলেকে আটক করেছে মৎস্য বিভাগ। এ সময় তাদের কাছ থেকে ২০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল ও দুটি মাছ ধরার ইঞ্জিন চালিত নৌকা জব্দ করা হয়।

মঙ্গলবার মধ্য রাত থেকে বুধবার দুপুর পর্যন্ত মেঘনা নদীর বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে ১৪ জন জেলেকে এক মাস করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড ও ৫ জন জেলেকে অর্থদণ্ড করা হয়।

রামগতি ও কমলনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সুচিত্র রঞ্জন দাস এবং ইমতিয়াজ হোসেন এ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন। এ সময় উপজেলা মৎস্য ও পুলিশ কর্মকর্তাসহ স্থানীয় এলাকাবাসী উপস্থিত ছিলেন।

কারাদণ্ডপ্রাপ্ত জেলেরা হলেন, আজগর হোসেন, রিপন উদ্দিন, হাসান, আলাউদ্দিন, জাহাঙ্গীর আলম, শাহীন, হেলাল উদ্দিন, সুজন মিয়া, আরিফ হোসেন, গনি মিয়া, মুছা কলিম উল্যাহ, ফারুক হোসেন, আমির হোসেন ও আনোয়ার হোসেন।

আরও পড়ুন: ড. ইউনূসের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি

অন্যদিকে অর্থদণ্ডপ্রাপ্ত জেলেরা হলেন, আজাদ উদ্দিন, সফিক উল্যাহ, তোফাজ্জল হোসেন, আলী হোসেন ও আবুল হোসেন। তারা রামগতি, কমলনগর ও নোয়াখালী জেলার বাসিন্দা।

লক্ষ্মীপুর জেলা মৎস্য কর্মকর্তা এস এম মহিব উল্যাহ বলেন, নিষেধাজ্ঞা সময় ২২ দিন মাছ শিকার, পরিবহন, মজুদ ও বাজারজাতকরণ অথবা বিক্রি নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এ আইন অমান্য করলে এক বছর থেকে ২ বছরের জেল অথবা জরিমানা এবং উভয় দণ্ডের বিধান রয়েছে। প্রতিদিন নদীতে মৎস্য বিভাগ, জেলা প্রশাসন ও কোস্টগার্ডের যৌথ অভিযান চলবে। ২২ দিন এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।

ইত্তেফাক/অনি

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২২ অক্টোবর, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন