শ্রীলঙ্কায় জাতীয় নির্বাচনে রাজাপক্ষে ভাইদের বিপুল জয়

নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন মাহিন্দা রাজাপক্ষে
শ্রীলঙ্কায় জাতীয় নির্বাচনে রাজাপক্ষে ভাইদের বিপুল জয়
মাহিন্দা রাজপক্ষে [ছুবি: সংগৃহীত]

শ্রীলঙ্কার পার্লামেন্ট নির্বাচনে বিজয়ের ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপক্ষে। প্রত্যাশিতভাবে তার ভাই ও সাবেক প্রেসিডেন্ট মাহিন্দা রাজপক্ষে প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পাচ্ছেন। অবশ্য গত নভেম্বর থেকে তিনি ভারপ্রাপ্ত প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বে ছিলেন।

দুই ভাইয়ের দল শ্রীলঙ্কা পিপলস ফ্রন্ট দুই-তৃতীয়াংশ আসনে বিশাল ব্যবধানে জয় পেয়েছে। দেশটির সাংবিধানিক পরিবর্তনের জন্য এই ‘সুপার মেজরিটির’ প্রয়োজন ছিল। রাজাপক্ষে ভাইদের দল পার্লামেন্টের মোট ২২৫টি আসনের মধ্যে ১২৫টিতে জয় পেয়েছে। আরো পাঁচটিতে জয় পেয়েছে তাদের মিত্র দলগুলো।

গত বছরের নভেম্বরে অনুষ্ঠিত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বড় জয় পান গোটাবায়া রাজাপক্ষে। এরপর গত বুধবার অনুষ্ঠিত হয় দেশটির পার্লামেন্ট নির্বাচন। নির্বাচনের ফলাফলে জয়ের খবর আসার পর মাহিন্দা রাজাপক্ষে এক টুইট বার্তায় বলেন, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ফোন করে তাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। দুই দশক ধরে শ্রীলঙ্কার রাজনীতিতে আধিপত্য বিস্তার করে চলেছে বিতর্কিত রাজাপক্ষে পরিবার। এর আগে ২০০৫ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত দেশটির প্রেসিডেন্ট ছিলেন মাহিন্দা রাজাপক্ষে। তার মন্ত্রিসভায় প্রতিরক্ষামন্ত্রী ছিলেন গোটাবায়া। বিদ্রোহী তামিলদের বিচারবহির্ভূতভাবে হত্যার জন্য তাকে দায়ী করা হয়।

এদিকে বিরোধী দলের অবস্থান খুইয়েছে সাবেক প্রধানমন্ত্রী রণিল বিক্রমাসিংহের দল। চলমান সংসদে ১০৬টি আসন থাকলেও বুধবারের নির্বাচনে তার দল মাত্র এক আসনে জয় পেয়েছে। প্রধান বিরোধী দল হিসেবে আবির্ভূত হয়েছে ১৯৯৩ সালে গুপ্তহত্যার শিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট রানাসিংহে প্রেমাদাসার ছেলে সাজিথ প্রেমাদাসার জোট।

করোনা মহামারিকালে নির্বাচনের আয়োজন করা অল্প কিছু দেশের মধ্যে একটি হলো শ্রীলঙ্কা। ভাইরাসটির সংক্রমণের কারণে এর আগে দুই দফা নির্বাচন স্থগিত করা হয়। তবে দ্বীপরাষ্ট্র শ্রীলঙ্কায় করোনার প্রাদুর্ভাব ততটা দেখা যায়নি। এখন পর্যন্ত দেশটিতে শনাক্ত হওয়া ২ হাজার ৮৩৯ জনের মধ্যে ১১ জন মারা গেছে।

প্রায় দুই দশক ধরে রাজাপক্ষে পরিবার শ্রীলঙ্কার ক্ষমতার কেন্দ্রে থেকেছে। ২০০৫ ও ২০১৫ সালে দুই মেয়াদে প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করেছেন মাহিন্দা। দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে করোনা ভাইরাসের বিস্তার নিয়ন্ত্রণে শ্রীলঙ্কাকে বেশ সফলই বলা যায়। দেশটিতে এখন পর্যন্ত মাত্র ২ হাজার ৮৩৯ জন কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হয়েছে। মারা গেছে ১১ জন।

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত