চীনের ল্যাব থেকে এবার ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ, আক্রান্ত কয়েক হাজার

চীনের ল্যাব থেকে এবার ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ, আক্রান্ত কয়েক হাজার
প্রতীকী ছবি।

চীনের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় লানঝৌ শহরে একটি বায়োফার্মাসিউটিক্যাল কোম্পানির ল্যাব থেকে গত বছর ব্রুসেলোসিস নামের এক ব্যাকটেরিয়া বের হয়ে যায়। আর সেই ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমনেই শহরটিতে তিন হাজারের বেশি মানুষ মাল্টা জ্বরে আক্রান্ত হয়েছেন । চীনের স্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের বরাত দিয়েছে মার্কিন সম্প্রচারমাধ্যম সিএনএন এমনটি জানিয়েছে।

মূলত গবাদি পশুর মাধ্যমে ব্রুসেলোসিস ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ ঘটে। এই ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণে মাল্টা জ্বর হয়। এই জ্বরটি ভূমধ্যসাগরীয় জ্বর নামেও পরিচিত। এই রোগের লক্ষণগুলোর মধ্যে রয়েছে মাথাব্যথা, মাংসপেশীতে ব্যথা, জ্বর ও অবসাদ।

সিএনএন'র প্রতিবেদনে বলা হয়, গত বছর জুলাই অথবা আগস্টের শেষের দিকে প্রাণীদের জন্য ব্রুসেলা ব্যাকটেরিয়ার ভ্যাকসিন তৈরির সময় ব্যাকটেরিয়াটি বের হয়ে যায়। এই ঘটনায় গত ফেব্রুয়ারিতে ওই কোম্পানি আনুষ্ঠানিকভাবে ক্ষমা চায় এবং আট জন কর্মীকে কঠোর শাস্তি দেয়।

চীনের কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, লানঝৌ শহরটির ২৯ লাখ বাসিন্দার মধ্যে এ পর্যন্ত ২১ হাজার ৮৪৭ জনের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়েছে। তিন হাজার ২৪৫ জনের ব্রুসেলোসিস রোগ সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া গেছে। আরও এক হাজার ৪০১ জনের মধ্যে প্রাথমিকভাবে এটির উপস্থিতি শনাক্ত হয়েছে। তবে এখনও এই রোগে কারও মৃত্যু হয়নি।

যুক্তরাষ্ট্রের সেন্টার্স ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন (সিডিসি) জানিয়েছে, ব্রুসেলা ব্যাকটেরিয়ায় আক্রান্ত গরু,উট, ভেড়া , ছাগলের মতো গৃহপালিত পশু থেকে মানুষের মধ্যে এটি সংক্রমিত হতে পারে। তবে মানুষ থেকে মানুষে এই রোগের সংক্রমণ বিরল।

ইত্তেফাক/এআর

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত