পাকিস্তানে গৃহযুদ্ধের ভূয়া খবর ভারতীয় সোস্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল

পাকিস্তানে গৃহযুদ্ধের ভূয়া খবর ভারতীয় সোস্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল
ছবি সংগৃহীত

পাকিস্তানের করাচি শহরে গৃহযুদ্ধ শুরুর ভুয়া খবর ভারতের বেশ কিছু অনলাইন মিডিয়া ও সামাজিক মাধ্যমে ব্যাপকভাবে প্রচারিত হয়। পাকিস্তানের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের একটি প্রতিবেদনের পর করাচিতে গৃহযুদ্ধ-সংক্রান্ত ওই ভুয়া খবর ছড়িয়ে পড়ে। দেশটির স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছিল, এক শীর্ষ বিরোধী নেতাকে গ্রেপ্তারে বাধ্য করার জন্য প্রাদেশিক পুলিশপ্রধানকে অপহরণ করেছে সেনারা।

এ খবরটিই লুফে নেয় ভারতের বিভিন্ন সাইট। ভারতীয় সাইটগুলোতে ফুলিয়ে-ফাঁপিয়ে বলা হয়, করাচিতে পুলিশ ও সেনারা সংঘর্ষে জড়িয়েছে। সংঘর্ষে করাচি পুলিশের অনেক কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। সড়কে ট্যাংক দেখা গেছে। টুইটারে একটি ভুয়া ভিডিও ঘুরতে থাকে, যাতে কথিত বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি দেখা যায়। কিন্তু বাস্তবে এসবের কোনো কিছুই সত্যি নয়।

করাচিতে এক রাজনীতিবিদের গ্রেপ্তারকে কেন্দ্র করে স্থানীয় অনেক পুলিশ ও বিরোধী দলের সদস্যরা ক্ষুব্ধ হলেও সেখানে কোনো সহিংসতার ঘটনা ঘটেনি। ভারত ও পাকিস্তান পরস্পরের চিরশত্রু হিসাবে পরিচিত। তাদের বিভিন্ন সময়ে পরস্পরের বিরুদ্ধে ভূয়া খবর প্রচার করতে দেখা গেছে। -বিবিসি

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত