পরমাণুকেন্দ্রে আন্তর্জাতিক পরিদর্শন বন্ধের দাবি ইরান পার্লামেন্টের

পরমাণুকেন্দ্রে আন্তর্জাতিক পরিদর্শন বন্ধের দাবি ইরান পার্লামেন্টের
ইরানের সংসদ। ছবি: সংগৃহীত।

শীর্ষস্থানীয় পরমাণু বিজ্ঞানী ও পদার্থবিজ্ঞানের অধ্যাপক মোহসিন ফখরিজাদে হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় পরমাণু কেন্দ্রে আন্তর্জাতিক পরিদর্শন বন্ধের দাবি জানিয়েছে ইরানের পার্লামেন্ট। গতকাল পার্লামেন্টের সদস্যরা যৌথ বিবৃতিতে এই দাবি জানান। খবর আলজাজিরা ও সিএনএনের

শীর্ষ বিজ্ঞানী হত্যার জন্য দ্রুত ও কার্যকর ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানিয়েছে পার্লামেন্ট। এমপিরা এই নৃশংস হত্যাকাণ্ডের জন্য ইসরাইলকে দায়ী করে জানান, এই হত্যাকাণ্ডের ফলে সরকারের কিছু সদস্যদের মধ্যেই সংশয় দেখা দিয়েছে যারা মনে করতেন সমঝোতার মাধ্যমে ইরান একটি স্বাভাবিক দেশে পরিণত হতে পারে। এই সংশয় দূর করতে সরকারকে কাজ করতে হবে। তারা বিজ্ঞানী হত্যার প্রতিবাদ হিসেবে পরমাণু কেন্দ্রগুলোতে জাতিসংঘের নেতৃত্বে আন্তর্জাতিক পরিদর্শন বন্ধ করারও দাবি জানিয়েছেন।

সংযত থাকার আহ্বান জাতিসংঘের

পরমাণু বিজ্ঞানীকে হত্যার পর মধ্যপ্রাচ্যে উত্তেজনা বেড়ে যাওয়ার প্রেক্ষাপটে জাতিসংঘ সংযত থাকার আহ্বান জানিয়েছে। শনিবার জাতিসংঘের একজন মুখপাত্র বলেন, আমরা সংযত থাকার এবং ঐ অঞ্চলে উত্তেজনা বাড়ার মতো যে কোনো কাজ থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানাচ্ছি। তিনি আরো বলেন, আমরা বিচারবহির্ভূতসহ যে কোনো হত্যাকাণ্ডের নিন্দা জানাই।

চীন ও রাশিয়ার কোম্পানির ওপর মার্কিন নিষেধাজ্ঞা

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও এক বিবৃতিতে বলেছেন, ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচির উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ প্রযুক্তি ও উপকরণ সরবরাহে অভিযুক্ত চার কোম্পানির ওপর মার্কিন সরকারের সহায়তার এবং দুই বছর ধরে তাদের রপ্তানির ওপর নিষেধাজ্ঞা বলবত্ থাকবে। চীন ভিত্তিক দুই কোম্পানি চেংদু বেস্ট নিউ ম্যাটারিয়ালস ও জিবো ইলিম ট্রেড এবং রাশিয়া ভিত্তিক দুই কোম্পানি নিলকো গ্রুপ ও জয়েন্ট স্টক কোম্পানি ইলাকনের ওপর বুধবার এ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়। পম্পেও আরো বলেন, আমরা ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র উন্নয়ন প্রচেষ্টা ঠেকানোর কাজ এবং ইরানকে ক্ষেপণাস্ত্র উপকরণ ও প্রযুক্তি সহায়তা করা চীন ও রাশিয়ার মতো বিদেশি সরবরাহকারীদের চিহ্নিত করে তাদের বিরুদ্ধে আমাদের নিষেধাজ্ঞা আরোপের ক্ষমতার ব্যবহার অব্যাহত রাখব।

ইত্তেফাক/এএইচপি

Nogod
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত