অবিলম্বে মিয়ানমারে দমন-পীড়ন বন্ধের আহ্বান জাতিসংঘ মহাসচিবের

অবিলম্বে মিয়ানমারে দমন-পীড়ন বন্ধের আহ্বান জাতিসংঘ মহাসচিবের
জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস। ছবি: সংগৃহীত

অবিলম্বে মিয়ানমারে দমন-পীড়ন বন্ধের আহ্বান জানিয়েছেন জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস। আজ সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সংস্থাটির মহাসচিব মিয়ানমারের সেনা কর্তৃপক্ষের প্রতি এই আহ্বান জানান।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের বরাতে জানা যায়, জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলে ধারণ করা ভিডিও বার্তায় আন্তোনিও গুতেরেস মিয়ানমারের সেনাশাসকদের পাশবিক শক্তিপ্রয়োগের বিরুদ্ধে সোচ্চার হন।

তিনি বলেন, সেনাবাহিনীর প্রতি আহ্বান জানাই তারা যেন অবিলম্বে দমন-পীড়ন বন্ধ করে দেয়। বন্দীদের মুক্তি দিন। সহিংসতা বন্ধ করুন। মানবাধিকারের প্রতি শ্রদ্ধা দেখান।

মিয়ানমারে সেনাশাসনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে গিয়ে এখন পর্যন্ত তিনজন বিক্ষোভকারী নিহত হয়েছেন। সেনাবাহিনীর বিধিনিষেধ এবং হুঁশিয়ারি উপেক্ষা করে অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে ফের রাস্তায় নেমেছে বিক্ষোভকারীরা। সোমবার অভ্যুত্থানবিরোধীরা সাধারণ ধর্মঘট এবং রাস্তায় রাস্তায় আরও বিক্ষোভ দেখানোর ডাক দিয়েছে। এদিকে দেশটির ব্যবসায়ীরাও প্রতিবাদ জানাতে ব্যবসার কার্যকলাপ বন্ধ করে দিয়েছে।

বিক্ষোভকে দেশটির স্থানীয় সংবাদ মাধ্যম গত এক ফেব্রুয়ারি অভ্যুত্থানের পর সবচেয়ে বড় বিক্ষোভ হিসেবে উল্লেখ করেছে।

বিক্ষোভকারীদের বিরুদ্ধে মিয়ানমার সেনাবাহিনী তাদের দমন নিপীড়ন অব্যাহত রাখলে যুক্তরাষ্ট্র দৃঢ় ব্যবস্থা নেবে এমন হুঁশিয়ারির পর এই বিক্ষোভ দেখা দিলো।

মিয়ানমারের প্রধান শহর ইয়াঙ্গনের রাস্তায় হাজার হাজার বিক্ষোভ কারী প্রতিবাদ জানাচ্ছেন। আটক সকল নেতাদের মুক্তি দিন বলে তারা স্লোগান দিচ্ছেন। এছাড়া বিক্ষোভকারীরা কাউকে কর্মস্থলে না যাওয়ার আহ্বান জানাচ্ছেন।

ইয়াঙ্গন ছাড়াও মিয়ানমারের রাজধানী নেপিডোতে বিশাল সমাবেশ দেখা দিয়েছে। একইসঙ্গে দেশটির মিতকিয়ানা, পানম, পিনমানাম, দাওয়েই এবং ভামোতে বিক্ষোভে নেমেছে বিক্ষোভকারীরা।

ইত্তেফাক/টিআর

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x